ফল নির্ধারক এক লাখ সংখ্যালঘু ভোট|112779|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৪ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০
দিনাজপুর-৬
ফল নির্ধারক এক লাখ সংখ্যালঘু ভোট
হাকিমপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি

ফল নির্ধারক এক লাখ সংখ্যালঘু ভোট

দিনাজপুরের হাকিমপুর, বিরামপুর, নবাবগঞ্জ ও ঘোড়াঘাটÑ এই চার উপজেলা নিয়ে গঠিত দিনাজপুর-৬ আসন। এখানে প্রায় এক লাখ ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর মানুষের বসবাস। তারাসহ এ আসনের লক্ষাধিক ভোটার সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের। তাদের ভোটই জয়-পরাজয় নির্ধারণে বড় প্রভাব ফেলবে। তবে বঞ্চনার অভিযোগ করে জীবন মানোন্নয়নে কার্যকর উদ্যোগ নেওয়ার দাবি জানিয়েছেন বিভিন্ন ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর সদস্যরা। ৪ লাখ ৬৬ হাজারের ভোটারের এ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী বর্তমান সংসদ সদস্য শিবলী সাদিক। ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে লড়ছেন জামায়াতে ইসলামীর নেতা আনোয়ারুল ইসলাম। আরো আছেন ইসলামী আন্দোলনের নূর আলম ছিদ্দিক ও ন্যাশনাল পিপলস পার্টির শাহিদা খাতুন।

দিনাজপুর-৬ নির্বাচনী এলাকায় বিভিন্ন নৃগোষ্ঠীর ভোটার প্রায় ৫২ হাজার। তারা আওয়ামী লীগের ভোট ব্যাংক হিসেবে পরিচিত। তবে জমি দখল, নির্যাতন, নিজস্ব ভাষায় শিক্ষার সুযোগ না থাকা, অনুন্নত যোগযোগ, কর্মসংস্থানের অভাব তাদের বড় সমস্যা। এবার নির্বাচন সামনে রেখে তারা সরকারি চাকরিতে কোটা বহাল, নিজস্ব মাতৃভাষায় শিক্ষা চালু ও জীবনমান উন্নয়নে কার্যকর ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানিয়েছে।

আদিবাসী নেতা মিকাইল টুডু বলেন, তারা বিভিন্নভাবে বঞ্চনার শিকার। প্রাক-প্রাথমিক পর্যায় থেকে তাদের শিশুদের মাতৃভাষায় শিক্ষার সুযোগ এবং নিজ বর্ণমালায় পাঠ্যপুস্তক প্রণয়ন করতে হবে। মূল জনগোষ্ঠীর সঙ্গে মিশে তাদের সংস্কৃতি হারিয়ে যাচ্ছে। তাই নিজস্ব সংস্কৃতি সংরক্ষণে অধ্যুষিত প্রতিটি উপজেলায় আদিবাসী একাডেমি প্রতিষ্ঠা করতে হবে।

আরেক নেতা কেরোবিন হেম্ব্রম বলেন, আদিবাসী অধ্যুষিত এলাকাগুলোতে রাস্তাঘাটের সুব্যবস্থা নেই। অনেক জায়গায় পাকা রাস্তা হলেও তাদের এলাকায় হয়নি।