নৌপথে ঈদের আগাম টিকিট বিক্রি শুরু কাল|143519|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১৯ মে, ২০১৯ ০০:০০
নৌপথে ঈদের আগাম টিকিট বিক্রি শুরু কাল
রিয়াজ হোসেন

নৌপথে ঈদের আগাম টিকিট বিক্রি শুরু কাল

ঈদুল ফিতর উপলক্ষে আগামীকাল ২০ মে সোমবার থেকে বিক্রি শুরু হবে লঞ্চের অগ্রিম টিকিট। ৩০ মে থেকে শুরু হবে লঞ্চের স্পেশাল সার্ভিস। ঈদে যাত্রী পারাপারে নৌপথে এবার যুক্ত হবে আরও ৫-৬টি নতুন লঞ্চ। ঈদে যাত্রীদের বিশেষ সেবা দিতে এসব রুটে দিনে ১৭০ থেকে ১৭৫টি লঞ্চ যাতায়াত করবে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ) ও বেসরকারি লঞ্চ মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌযান পরিবহন (যাত্রী) সংস্থার কর্মকর্তারা দেশ রূপান্তরকে এসব তথ্য জানান। তারা জানান, আজ রবিবার লঞ্চ মালিকসহ সংশ্লিষ্টদের নিয়ে সদরঘাটে বৈঠক হবে। সেখানে লঞ্চের কেবিনের অগ্রিম টিকিট বিক্রির ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

এদিকে তারিখ নির্ধারণের আগেই গত শুক্রবার থেকে লঞ্চের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু করেছে কয়েকটি লঞ্চ কোম্পানি। এ ব্যাপারে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌযান পরিবহন (যাত্রী) সংস্থার যুগ্ম আহ্বায়ক প্রিন্স আওলাদ হোসেন দেশ রূপান্তরকে বলেন, যাত্রীদের দুর্ভোগ এড়াতে এবং কালোবাজারিদের হাত থেকে যাত্রীদের হয়রানি রোধে অগ্রিম টিকিট বিক্রি কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। ঢাকা বরিশাল নৌপথে কয়েকটি লঞ্চ কোম্পানি কেবিনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি করছে।

ঢাকা নদীবন্দরের (সদরঘাট) যুগ্ম পরিচালক (নৌ-নিরাপত্তা ও ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা) আলমগীর কবির দেশ রূপান্তরকে বলেন, অগ্রিম টিকিট বিক্রির বিষয়ে আমার কিছু জানা নেই। আগামীকাল (আজ রবিবার) লঞ্চমালিকসহ সংশ্লিষ্টদের নিয়ে সভা হবে। সেখানে আমরা ২০ মে থেকে লঞ্চের কেবিনের অগ্রিম টিকিট বিক্রির সুপারিশ করব। সভায় অনুমোদন পেলে টিকিট বিক্রি শুরু হবে।

এই কর্মকর্তা জানান, সাধারণ যাত্রীরা যাতে স্বস্তিতে ঈদে বাড়ি যেতে পারে, তাই ৩০ মে থেকে ঈদের স্পেশাল লঞ্চ চলাচল শুরু হবে। বর্তমানে ২১৫টি লঞ্চ ও ২টি স্টিমার রয়েছে। এবার আরও ৫-৬টি নতুন লঞ্চ যুক্ত হবে। সদরঘাট থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে ৪৩টি রুটে লঞ্চ চলাচল করে। ঈদকে কেন্দ্র করে এসব রুটে ৩০-৩৫ লাখ যাত্রী যাতায়াত করে। ঈদে যাত্রীদের বিশেষ সেবা দিতে এসব রুটে দিনে ১৭০ থেকে ১৭৫টি লঞ্চ যাতায়াত করবে। বাকি  লঞ্চ দিয়ে স্পেশাল সার্ভিস পরিচালনা করা হবে।