পুতিন-সৌদি যুবরাজের সঙ্গে ট্রাম্পের ফোনালাপ গোপনের চেষ্টা|170696|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২১:৫৭
পুতিন-সৌদি যুবরাজের সঙ্গে ট্রাম্পের ফোনালাপ গোপনের চেষ্টা
অনলাইন ডেস্ক

পুতিন-সৌদি যুবরাজের সঙ্গে ট্রাম্পের ফোনালাপ গোপনের চেষ্টা

বিশ্ব নেতৃবৃন্দদের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ফোনালাপ গোপন করতে চেষ্টা করেছিল হোয়াইট হাউস। যাদের মধ্যে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এবং সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে ফোনালাপও আছে।

সিএনএন এবং নিউইয়র্ক টাইমসের বরাতে এই সংবাদ দিয়েছে বিজনেস ইনসাইডার।

সাবেক এবং বর্তমান সরকারি কর্মকর্তাদের সূত্রে জানা যায়, হোয়াইট হাউসে একটি কম্পিউটার সিস্টেমে ট্রাম্পের ফোনালাপের ট্রান্সক্রিপ্ট সংরক্ষণ করা হয়। অতি গোপনীয় তথ্য হিসেবে সংরক্ষণ করা হয় এসব ফোনালাপ।

গত বছর থেকে এসব ফোনালাপের ট্রান্সক্রিপ্ট গোপন করা শুরু করে হোয়াইট হাউস। অস্ট্রেলিয়ার প্রেসিডেন্টসহ কয়েকজন বিশ্বনেতার সঙ্গে ট্রাম্পের ফোনালাপ ফাঁস হয়ে গেলে এমনটা পদক্ষেপ নেয় তারা।

গোপন করা এসব তথ্যে সৌদি যুবরাজের সঙ্গে ফোনালাপও আছে। ওয়াশিংটন পোস্ট জামাল খাশোগি হত্যাকাণ্ডের সময় এসব কথোপকথন হয় বলে জানা গেছে।

তবে তথ্য ফাঁসকারী সূত্র বলছে, খাশোগি সম্পর্কে ট্রাম্প ফোনে এমন কিছু বলেননি যা অপরাধের পর্যায়ে পড়ে।

সিআইএর তদন্তে উঠে আসে, মোহাম্মদ বিন সালমানের নির্দেশেই এই হত্যাকাণ্ড সংগঠিত হয়। যদিও সৌদি যুবরাজ এই অভিযোগ অস্বীকার করেন।

সম্প্রতি ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভোলোদিমির জেলেনস্কির সঙ্গে বিতর্কিত ফোনালাপ নিয়ে অভিশংসনের মুখে পড়ার শঙ্কায় রয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এ নিয়ে দ্বিতীয় মেয়াদে নির্বাচনের আগে বিপাকে পড়েছেন তিনি।

ওই ফোনালাপে তাদের দুজনের মধ্যে কী কথা হয়েছে সেটা স্পষ্ট নয়। তবে ডেমোক্র্যাটদের অভিযোগ, সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট ও প্রতিদ্বন্দ্বী জো বাইডেন এবং তার ছেলে হান্টারের দুর্নীতির অভিযোগ তদন্তে ইউক্রেনকে চাপ দিতে সামরিক সহায়তা স্থগিতের হুমকি দিয়েছিলেন ট্রাম্প।

এই ফোনালাপের ইলেকট্রনিক ট্রান্সক্রিপ্ট সচরাচর যে কম্পিউটার সিস্টেমে সংরক্ষণ করা হয়  সেখান থেকে মুছে ফেলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল। সেই সঙ্গে রাষ্ট্রীয় অতিগোপনীয় তথ্য সংরক্ষণ করা হয় এমন কম্পিউটার সিস্টেমে রাখা হয়েছিল।

তবে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ’র এক কর্মকর্তা এই ফোনালাপ ফাঁস করে দেন। হোয়াইট হাউসে এক সময় দায়িত্ব পড়েছিল তার।