বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

আফগানিস্তানে ৩ মার্কিন সৈন্য নিহত

আপডেট : ২৮ নভেম্বর ২০১৮, ০২:৩০ পিএম

আফগানিস্তানে এক বিস্ফোরণে যুক্তরাষ্ট্রের তিন সেনাসদস্য নিহত হয়েছেন। এতে আহত হয়েছেন আরো তিনজন। রাজধানী কাবুলের দক্ষিণে গজনি শহরের কাছে এই বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে।

দেশটিতে নিয়োজিত ন্যাটো বাহিনী মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে জানায়, আকস্মিক এই বিস্ফোরণে একজন মার্কিন টিকাদারও গুরুতর আহত হয়েছেন।

বিবিসি জানায়, ঘটনা নিয়ে বিস্তারিত কিছু জানায়নি মার্কিন বাহিনী। ঘটনাস্থল থেকে নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। আহতদেরকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

এদিকে তালেবান যোদ্ধারা এই বিস্ফোরণে দায় স্বীকার করেছে। কাবুলের দক্ষিণে শহরটিতে তারাই এ হামলা চালিয়েছে বলে দাবি করে তালেবান।

শনিবার দেশটির নিমরোজ প্রদেশেও এক মার্কিন সৈন্য নিহত হন। তবে ন্যাটো বাহিনী জানায়, দুর্ঘটনাবশত গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যান তিনি।

গত ৩ নভেম্বর যুক্তরাষ্ট্রের সল্ট লেক সিটির উতাহ নেশন্যাল গার্ডের প্রধান ও সিটি মেয়র ব্রেন্ট টেইলর গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যান। টেইলর মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থার একজন মেজর ছিলেন। আফগান নিরাপত্তা কর্মীদের প্রশিক্ষণ দিতে জানুয়ারিতে তিনি আফগানিস্তান আসেন।

নভেম্বরের শুরুর দিকে আফগান প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনি জানান, ২০১৫ সাল থেকে এখন পর্যন্ত ২৮ হাজার আফগান পুলিশ ও সেনাসদস্য নিহত হয়েছেন।

নিউইয়র্ক টাইমস এক প্রতিবেদনে জানায়, স্পর্শকাতর বিষয় বিবেচনায় এসব ঘটনার কোনো তথ্য দিতে চায় না মার্কিন ও আফগান কর্মকর্তারা।

তবে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা বিষয়ক প্রকাশনা ডিফেন্স পোস্ট সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরে ১৩ জন মার্কিন সেনাসদস্য নিহত হয়েছেন আফগানিস্তানে।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে আফগানিস্তানে মার্কিন অভিযান সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়। তবে আফগান সেনাদের প্রশিক্ষণ ও সহযোগিতার জন্য স্বল্পসংখ্যক মার্কিন সেনা এখনো দেশটিতে অবস্থান করেছে।

এদিকে সাম্প্রতিক সময়ে তালেবান যোদ্ধারা শক্তিশালী হয়ে ওঠেছে। অল্প সময়ে মার্কিন ও আফগান সৈন্যদের ওপর একাধিক হামলা চালিয়ে নতুন করে উদ্বেগ সৃষ্টি করেছে তারা।

২০১৭ সালে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ইঙ্গিত দেন, তালেবানদের শক্তি বাড়ায় অনির্দিষ্টকালের জন্য মার্কিন সেনারা আফগানিস্তানে অবস্থান করতে পারে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত