বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

নির্বাচনের পর দায়িত্ব আরও বেড়ে গেছে : প্রধানমন্ত্রী

আপডেট : ০৩ জানুয়ারি ২০১৯, ০১:৩২ এএম

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নিরঙ্কুশ জয়ে দেশবাসীর প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। একই সঙ্গে তিনি জনগণের কল্যাণে কাজ করে যাওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। গতকাল বুধবার বিকেলে গণভবনে শুভেচ্ছা জানাতে আসা বিভিন্ন সংস্থা ও ব্যক্তিদের সঙ্গে সাক্ষাতে এমন অভিব্যক্তি প্রকাশ করেন তিনি। প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘জনগণের সেবা করা একটি বড় কাজ এবং আমি যতদিন বেঁচে থাকব, এটা অব্যাহত রাখব।’ তিনি আরও বলেন, ‘নির্বাচনের পর দেশ ও জনগণের প্রতি আমার দায়িত্ব আরো বেড়ে গেছে।’ শেখ হাসিনা জনগণের আশা-আকাক্সক্ষা পূরণে কাজ করে যাওয়ার আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, ‘রবিবারের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিপুল বিজয় সব সম্প্রদায় এবং  শ্রেণি-পেশার জনগণের সম্মিলিত প্রচেষ্টার ফসল।’ জনগণের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ‘সমাজের সর্বস্তরের জনগণ আওয়ামী লীগের বিজয়ের জন্য সর্বান্তকরণে প্রচেষ্টা চালিয়েছিল এবং এ জন্য আমি তাদের প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।’ এ সময় তিনি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত বাংলাদেশ গড়ে তোলার স্বপ্ন বাস্তবায়নে সবার সহযোগিতা চান।

প্রধানমন্ত্রী তার সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও মাদকবিরোধী অনড় অবস্থান পুনর্ব্যক্ত করে বলেন, বাংলাদেশের মাটিতে এ ধরনের জঞ্জালের কোনো স্থান হবে না।

মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের ধন্যবাদ : প্রধানমন্ত্রী ‘যুদ্ধাপরাধীদের পক্ষ’ বর্জন করে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি আওয়ামী লীগের নেতৃত্বের প্রতি নির্বাচনে আস্থা রাখায় মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও তরুণ প্রজন্মের প্রতি আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের প্রতিনিধিত্বকারী সংগঠন ‘আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান’-এর কেন্দ্রীয় কমিটির নেতারা গণভবনে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানাতে গেলে তিনি এ কথা বলেন। 

শেখ হাসিনা বলেন, ‘দেশ গঠন, সন্ত্রাস দূরীকরণ এবং জঙ্গি ও মাদক নির্মূলে সবাইকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় একযোগে কাজ করতে হবে। এ ব্যাপারে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে।’ 

ওই সময় সংগঠনের সভাপতি মো. সাজ্জাদ হোসেন, প্রেসিডিয়াম সদস্য ও শহীদ সাংসদ নুরুল হক হাওলাদারের মেয়ে জোবায়দা হক অজন্তা, প্রেসিডিয়াম সদস্য ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ডিন ড. কাজী সাইফুদ্দীন উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশ স্কাউটস ও গার্ল গাইডস অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তা, উচ্চপদস্থ সামরিক-বেসামরিক ও অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অনুষ্ঠানে ফুলের তোড়া দিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে শুভেচ্ছা জানান। এ ছাড়া ব্যবসায়ী, শিক্ষক, শিল্পী, সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতারাও তাকে অভিনন্দন জানান।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত