শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ৭ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

সিঙ্গাপুরে বিদিশা

এরশাদের অবস্থা নিয়ে চিন্তিত দল

আপডেট : ০২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৩:১৪ এএম

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের শারীরিক অবস্থা অতটা ভালো নয় বলে জানিয়েছেন দলের নেতারা। গতকাল শুক্রবার দেশ রূপান্তরকে তারা বলেন, সিঙ্গাপুরে যাওয়ার পর হাসপাতালে এরশাদের শারীরিক অবস্থার তেমন কোনো উন্নতি হয়নি। এমন পরিস্থিতিতে ঠিক কতটুকু সুস্থ হয়ে উঠবেন তিনি, সে নিয়ে শঙ্কায় দলের শীর্ষ নেতারা। এমনকি দলের শীর্ষ পর্যায় থেকে যেকোনো পরিস্থিতির জন্য দলকে প্রস্তুত থাকার কথাও জানিয়েছেন জাপার এক নেতা।

দলের এক ভাইস চেয়ারম্যান দেশ রূপান্তরকে বলেন, ‘সিঙ্গাপুরে আমার কথা হয়েছে। স্যারের অবস্থা খুব যে ভালো তা নয়। এই অবস্থায় তিনি ঠিক কতটুকু সারভাইভ করবেন, তা বলা যাচ্ছে না। ৩০ জানুয়ারির আগে দেশে ফেরার কথা থাকলেও এখন কবে ফিরবেন তা অনিশ্চিত।’ সিঙ্গাপুর থেকে দলের শীর্ষ নেতাদের এবং তারা দলের অন্য নেতাদের বলেছেন, যেকোনো পরিস্থিতির জন্য তৈরি থাকতে।

এরশাদের অনুপস্থিতিতে দলের চেয়ারম্যান ও তার ছোট ভাই জি এম কাদের দেশ রূপান্তরকে বলেন, ‘আগের চেয়ে (তিনি) এখন কিছুটা ভালো। তবে খুব স্বাভাবিক অবস্থায় আসেননি।’

এদিকে এরশাদকে দেখতে তার সাবেক স্ত্রী বিদিশা সিঙ্গাপুরে গিয়েছিলেন বলে জানিয়েছেন জাপার এক নেতা। তিনি বলেন, এরশাদ সিঙ্গাপুরে যাওয়ার পরপরই বিদিশা ভারতে যান। সেখানে তিনি আজমির শরিফে এরশাদের জন্য দোয়া করেন। সেখান থেকে গত সপ্তাহে তিনি সিঙ্গাপুরে যান এবং হাসপাতালে এরশাদের সঙ্গে দেখা করেছেন বলেও শুনেছেন।

এ বিষয়ে জানতে গতকাল কয়েকবার ফোন করেও বিদিশাকে পাওয়া যায়নি। ফোন বাজলেও তিনি ধরেননি। তবে গত শনিবার মোবাইল ফোনে বিদিশা দেশ রূপান্তরকে বলেছিলেন, ‘এখন তিনি ভারতে। এরশাদকে নিয়ে কোনো ব্যক্তিগত কথা তিনি ফোনে বা কারও সঙ্গে বলতে চান না, যা বলার তিনি ফেইসবুকে লিখবেন।’

সিঙ্গাপুরে যাওয়ার আগে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালেও এরশাদকে দেখতে গিয়েছিলেন বিদিশা। এ ব্যাপারে ফেইসবুকে দেওয়া স্ট্যাটাসে তিনি জানান, তার ছেলে এরিকের জন্য এরশাদের আরও কিছুদিন বেঁচে থাকা প্রয়োজন। সেখানে এরশাদের কাছে ফিরে যাওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, প্রাক্তনকে প্রাক্তন থাকতে দিন, তাতে সবারই মঙ্গল। পরে এরশাদের সুস্থতা কামনা করে আরও একদিন একটি স্ট্যাটাস দেন বিদিশা।

এরশাদের অসুস্থতায় চিন্তিত রওশন এরশাদও। তিনি দলের সবাইকে তার সুস্থতার জন্য দোয়া করতে বলেছেন বলে জানান জাপার এক নেতা। তবে এ বিষয়ে জানতে রওশন এরশাদকে ফোন করা হলে তা বন্ধ পাওয়া গেছে।

সিঙ্গাপুরে থাকা এরশাদের স্বজনদের সঙ্গে কথা হয়েছে জাপার এমন এক নেতা দেশ রূপান্তরকে বলেন, সিঙ্গাপুরে যাওয়ার সময় এরশাদ কিছুই খেতে পারছিলেন না। সেখানেও একই অবস্থা। তবে দল থেকে তার শারীরিক অবস্থা নিয়ে স্পষ্ট করে কিছু বলা হচ্ছে না।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত