শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ৬ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

সাকিবকে নিয়ে যা বললেন মাশরাফী

আপডেট : ১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৮:৫৬ পিএম

আঙুলের চোটে নিউ জিল্যান্ড সিরিজ থেকে ছিটকে গেছেন সাকিব আল হাসান। নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধ কন্ডিশনে দলের অন্যতম সেরা তারকাকে ছাড়াই এখন লড়তে হবে বাংলাদেশকে। এমনিতেই অতীতে তাসমান সাগর পড়ের দেশটিতে বরাবরই কঠিন পরীক্ষা দিতে হয়েছে বাংলাদেশকে। সাকিব আল হাসানকে ছাড়া এবার চ্যালেঞ্জটা আরো বেশি বলে মনে করছেন বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফী বিন মোর্ত্তজা।

নিউ জিল্যান্ড সফরের জন্য মাশরাফী সহ চার ক্রিকেটার রোববার শেষ ধাপে নিউজিল্যান্ডে পা রাখার কথা। শনিবারই তারা দেশ ছাড়েন। নিউ জিল্যান্ডগামী বিমান ধরার আগে শনিবার রাতে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন মাশরাফী।

এ সময় সাকিবের ছিটকে যাওয়ার বিষয় নিয়েই বেশি কথা বলতে হলো টাইগার অধিনায়ককে। মাশরাফী বলেন, ‘‘সাকিব আমাদের জন্য কতটা গুরুত্বপূর্ণ সেটা নতুন করে উল্লেখ্য করার প্রয়োজন নেই। কারণ তাকে ছাড়া খেলতে গিয়ে প্রতিবারই আমাদের কঠিন চ্যালেঞ্জের মধ্যে পড়তে হয়েছে।’’

নিউ জিল্যান্ডে সেই চ্যালেঞ্জটা বারো বড় হবে বলে মনে করেন মাশরাফী, ‘‘আমরা সবাই জানি নিউজিল্যান্ড সফর আমাদের জন্য কতটা চ্যালেঞ্জের। সাকিবকে হারানোর পর সেই চ্যালেঞ্জটা এখন দ্বিগুণ বেড়ে গেছে। আমরা আমাদের বাকি শক্তি নিয়ে খেলব। কারণ আমরা এশিয়া কাপে একই রকম চ্যালেঞ্জ নিয়ে খেলেছি।’’

এশিয়া কাপের মাঝপথে আঙুলের চোটে ছিটকে গিয়েছিলেন সাকিব। আর আসরের শুরুতেই হাতের ইনজুরিতে ছিটকে যান তামিম ইকবালও। তবু সংযুক্ত আরব আমিরাতে অনুষ্ঠিত আসরে ফাইনাল খেলে টাইগাররা।

মাশরাফী তাই ব্ল্যাক ক্যাপসদের বিপক্ষে ইতিবাচক থাকতে চান, ‘‘আমরা এই চ্যালেঞ্জ পেরোনোর জন্য ইতিবাচক থাকতে চাই। এটা ঠিক সাকিবের অভাব পূরণের নয়। কারণ তার অনুপস্থিতি মানে আমাদের দুইটি জায়গায় বিকল্প খুঁজতে হয়। আমাদের সেই ঘাটতি পূরণে মানসিকভাবে প্রস্তুতি হতে হবে।’’

প্রথম ধাপে বাংলাদেশ দলের অন্য ক্রিকেটাররা যখন নিউ জিল্যান্ডের বিমান ধরেন, কোচ স্টিভ রোডস জানিয়েছিলেন সিরিজ জয়ের লক্ষ্যের কথা। তবে সাকিবকে ছাড়া সেই লক্ষ্য পূরণ কি অবাস্তব কল্পনা?

মাশরাফী বলছেন, ‘‘ওয়ানডে সিরিজ জেতা সম্ভব। এটা সত্য নয় যে আমরা জিততে পারবো না, কিন্তু এখন (সাকিবের অনুপস্থিতিতে) সেটি কঠিন হয়ে গেছে। তবে সম্ভব।’’

‘‘এটি করতে হলে আমাদের নিজেদের উপর বিশ্বাস রাখতে হবে। মানসিক দৃঢ়তা থাকতে হবে। আমাদের প্ল্যানগুলো ঠিকঠাক কাজে লাগাতে হবে। যদি এগুলো ঠিকঠাক করতে পারি তবে সম্ভব হবে।’’

নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশ প্রথম ওয়ানডে খেলবে ১৩ ফেব্রুয়ারি। নেপিয়ারে অনুষ্ঠিত হবে ম্যাচটি। ক্রাইস্টচার্চে দ্বিতীয় ওয়ানডে ১৬ ফেব্রুয়ারি। ডানেডিনে তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডে হবে ২০ ফেব্রুয়ারি। ওয়ানডে সিরিজ শেষে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলবে দুই দল।

রোববার ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে নিউজিল্যান্ড একাদশের কাছে ২ উইকেটে হেরেছে বাংলাদেশ।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত