সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ২ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

দেবরের ছুরিকাঘাতে ভাবির মৃত্যু

মারা গেলেন শাশুড়িও

আপডেট : ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০২:০৬ এএম

রাজধানীর দক্ষিণখানে ছেলের ছুরিকাঘাতে আহত হামিদা বেগম (৬০) মারা গেছেন। গতকাল মঙ্গলবার সকালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। একই ঘটনায় গত সোমবার সন্ধ্যায় উত্তরার টিআইসি কলোনিতে দেবরের ছুরিকাঘাতে ভাবি শারমিন আক্তার (৩৫) মারা যান। ঘটনার পর পালিয়ে যাওয়া শফিকুল ইসলামকে গতকাল রাত পর্যন্ত ধরতে পারেনি পুলিশ।

নিহত হামিদা বেগমের আরেক ছেলে রাকিব দেশ রূপান্তরকে বলেন, ‘ঘটনার দিন বিকেলে শফিকুল সম্পত্তি লিখে দেওয়ার জন্য মাকে চাপ দেয়। কিন্তু মা সম্পত্তি লিখে দিতে অস্বীকার করলে সে ক্ষিপ্ত হয়ে মাকে ছুরি মারে। তখন ভাবি বাধা দিতে গেলে তাকেও ছুরিকাঘাত করে শফিকুল। দ্রুত মা ও ভাবিকে টঙ্গী সরকারি হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানকার চিকিৎসক ভাবিকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাতে মাকে ঢাকা মেডিকেলে ভর্তি করা হয়। সেখানে সকাল পৌনে ৭টার দিকে মার মৃত্যু হয়।’

দক্ষিণখান থানার ওসি তপন চন্দ্র সাহা বলেন, ‘শফিকুলকে ধরতে অভিযান চলছে। সে ইতালিতে থাকত। গত বছর ডিসেম্বরে ছুটিতে দেশে আসে।’

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত