মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১১ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

ব্যাংকে মাথাপিছু আমানত

লালমনিরহাটের ৬০ জন ঢাকার ১ জনের সমান

আপডেট : ০৩ মার্চ ২০১৯, ১২:০৫ এএম

ঢাকার একজনের গড় আমানত তিন লাখ ৯১ হাজার চার শ’ টাকা। লালমনিরহাটের প্রতিজনের গড় আমানত ৬ হাজার পাঁচ শ’ টাকা। অর্থাৎ, মাথাপিছু আমানত বিবেচনায় ঢাকার একজনের ব্যাংকে রাখা আমানত লালমনিরহাটের ৬০ জনের আমানতের সমান। কেবল রাজধানী ঢাকার সঙ্গেই নয়, পার্বত্য জেলা বান্দরবানের মানুষের গড় আমানতের হার উত্তরের এ জেলাটির মানুষের আমানতের দ্বিগুণেরও বেশি।
বাংলাদেশ ব্যাংক প্রকাশিত সর্বশেষ ‘তফসিলি ব্যাংকস পরিসংখ্যান’ প্রতিবেদনে জেলাওয়ারী মাথাপিছু আমানতের তথ্য পর্যালোচনা করে এ তথ্য পাওয়া গেছে। তাতে ঢাকার মানুষের গড় আমানত সবচেয়ে বেশি। দ্বিতীয় শীর্ষে থাকা চট্টগ্রামের মাথাপিছু আমানত এক লাখ ৭৩ হাজার সাত শ’ টাকা, যা সবচেয়ে কম মাথাপিছু আয়ের জেলা লালমনিরহাটের প্রায় ২৯ গুণ।
গত জুলাই-সেপ্টেম্বর সময়ে দেশের তফসিলি ব্যাংকগুলোতে থাকা আমানতের তথ্যের ভিত্তিতে করা প্রতিবেদনটি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, সবচেয়ে কম মাথাপিছু আয়ের পাঁচ জেলার তিনটিই রংপুর বিভাগে- লালমনিরহাট, কুড়িগ্রাম ও গাইবান্ধা। বাকি দুটি ময়মনসিংহ বিভাগের নেত্রকোনা ও শেরপুর। এর মধ্যে কুড়িগ্রাম ও নেত্রকোনার মাথাপিছু আমানত ৬ হাজার সাত শ’ টাকা করে, গাইবান্ধার ৭ হাজার তিন শ’ ও শেরপুরের ৮ হাজার তিন শ’ টাকা। ঠাকুরগাঁও মাথাপিছু ৯ হাজার টাকা আমানত নিয়ে নিম্নতালিকার ৬ নম্বরে রয়েছে।
অন্যদিকে, সর্বোচ্চ মাথাপিছু আমানতের পাঁচ জেলার মধ্যে ঢাকা ও চট্টগ্রাম ছাড়াও রয়েছে নারায়ণগঞ্জ, ফেনী ও খুলনা। শিল্পোন্নত নারায়ণগঞ্জের মানুষের গড় আমানত ৬২ হাজার দুই শ’ টাকা, ফেনীর ৫৪ হাজার পাঁচ শ’ টাকা ও খুলনার মাথাপিছু আমানত ৫১ হাজার এক শ’ টাকা।  
প্রতিবেদনটি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, দেশের ১৬ কোটি ৫০ লাখ ৮০ হাজার ৮৪০ জন মানুষের মোট আমানতের পরিমাণ ১০ লাখ চার হাজার ৩৮ কোটি টাকা। অর্থাৎ, পুরো দেশের মানুষের গড় মাথাপিছু আমানতের পরিমাণ ৬৩ হাজার টাকা। মূলত ঢাকা ও চট্টগ্রামের মানুষের উচ্চ মাথাপিছু আমানতের কারণে গড় মাথাপিছু আমানত বেড়েছে। দেশের বেশিরভাগ জেলার মাথাপিছু আমানত জাতীয় গড় মাথাপিছু আমানতের চেয়ে অনেক কম। আর সর্বনিম্ন মাথাপিছু আমানতের জেলা লালমনিরহাট, কুড়িগ্রাম, নেত্রকোনা, শেরপুর, গাইবান্ধা ও শেরপুরের মানুষের মাথাপিছু আমানত জাতীয় মাথাপিছু আমানতের প্রায় ১০ ভাগের এক ভাগ।
দেশের তিন পার্বত্য জেলা বান্দরবান, রাঙ্গামাটি ও খাগড়াছড়ির মানুষের মাথাপিছু আমানত ময়মনসিংহ ও রংপুর বিভাগের জেলাগুলোর গড় মাথাপিছু আমানতের চেয়ে বেশি। রংপুর বিভাগের আটটি জেলার মানুষের গড় মাথাপিছু আমানত ১০ হাজার ৯শ টাকা, ময়মনসিংহ বিভাগের চার জেলায় এ হার ১১ হাজার আট শ’ টাকা।    
বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, মোট আমানত ১০ লাখ চার হাজার ৩৮ কোটি টাকার মধ্যে ঢাকা বিভাগের আমানত অর্ধেকেরও বেশি। এ বিভাগের ১৩টি জেলার আমানতের পরিমাণ ছয় লাখ ৩২ হাজার ৭২৭ কোটি টাকা। পরের অবস্থানে থাকা ১১ জেলা নিয়ে গঠিত চট্টগ্রাম বিভাগের আমানতের পরিমাণ দুই লাখ ২৭ হাজার ৫৩৫ কোটি টাকা। ৪৩ হাজার ২৯৭ কোটি টাকা নিয়ে তৃতীয় স্থানে খুলনা, ৪১ হাজার ৬০৫ কোটি টাকার আমানত নিয়ে চতুর্থ সিলেট এবং ৪০ হাজার ৬৪৪ কোটি আমানত নিয়ে তার পরের অবস্থানে আছে রাজশাহী বিভাগ।
আটটি জেলা নিয়ে গঠিত রংপুর বিভাগের আমানতের পরিমাণ ১৯ হাজার ৭৮০ কোটি টাকা। আমানতের আকার বিবেচনায় রংপুরের অবস্থান সপ্তম। ১৯ হাজার ৫৪৬ কোটি টাকা নিয়ে অষ্টম স্থানে রয়েছে ছয়টি জেলা নিয়ে গঠিত বরিশাল বিভাগ। আর চার জেলার বিভাগ ময়মনসিংহের আমানতের পরিমাণ ১৪ হাজার ৯০২ কোটি টাকা।
গত ১০ ফেব্রুয়ারি আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ-সিপিডির নির্বাহী পরিচালক ফাহমিদা খাতুন বলেন, দেশে ধনী-দরিদ্রের বৈষম্য বেড়েই চলছে। ১৯৯১-৯২ অর্থবছরে বাংলাদেশে সবচেয়ে ধনী ৫ শতাংশ মানুষের হাতে ছিল মোট সম্পদের ১৮ দশমিক ৮৫ শতাংশ। ২০১৫-১৬ অর্থবছরে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৭ দশমিক ৮৯ শতাংশ। একইভাবে ১৯৯১-৯২ অর্থবছরে সবচেয়ে গরিব ৫ শতাংশের কাছে ছিল ১ শতাংশের কিছু বেশি সম্পদ। ২০১৫-১৬ অর্থবছরে তা কমে নেমেছে দশমিক ২৩ শতাংশে। এই সময়ের মধ্যে শীর্ষ ৫ শতাংশের সম্পদ ১২১ গুণ বেড়েছে।
বিকাশের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিই্ও) কামাল কাদির দেশ রূপান্তরকে বলেন, গাইবান্ধাসহ উত্তরাঞ্চলের জেলাগুলোতে বিকাশ সবচেয়ে বেশি চলছে। কারণ, ওইসব জেলায় ব্যাংকের শাখা খুবই কম। মানুষের সঞ্চয় কম বলে সেখানে ব্যাংকগুলো শাখা খুলতে আগ্রহী হয় না।

   
সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত