বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

অনুষ্ঠানে দুদক সচিব

অযথা কাউকে হয়রানি করা যাবে না

আপডেট : ০৮ মার্চ ২০১৯, ০২:৫৫ এএম

দুর্নীতির অভিযোগ অনুসন্ধান বা তদন্তের সময় কাউকে অযথা হয়রানি করা যাবে না বলে কর্মকর্তাদের সতর্ক করেছেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সচিব মুহাম্মদ দিলোয়ার বখ্ত। গতকাল বৃহস্পতিবার দুদক কার্যালয়ে ভূমি ব্যবস্থাপনা প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে সনদ বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি এই মন্তব্য করেন।

সচিব দিলোয়ার বখ্্ত বলেন, কমিশনের কর্মকর্তাদের শুধু ভূমি ব্যবস্থাপনা নয়, প্রকৌশল, ব্যাংক, কর, কাস্টমস, মানিলন্ডারিংসহ সকল সেক্টরভিত্তিক প্রশিক্ষণের প্রয়োজন। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে। এতে প্রতিটি সেক্টরের দুর্নীতি উৎস চিহ্নিত করে তা দমনে আইনি ব্যবস্থায় নতুন নতুন চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে পারবেন।

দুদক সচিব বলেন, কমিশন মামলা দায়েরের আগেই অনুসন্ধান করে। তাই অনুসন্ধানকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে অনুসন্ধান পর্যায়েই আইন অনুসারে প্রয়োজনীয় দালিলিক প্রমাণাদি সংগ্রহ করা উচিত। এতে তদন্তের দীর্ঘসূত্রতা হ্রাস পেতে পারে এবং সময়াবদ্ধকালে তদন্ত সম্পন্ন করার পথ সুগম হতে পারে। তিনি বলেন, দুর্নীতির অভিযোগের অনুসন্ধান বা তদন্ত পর্যায়ে কোনো মানুষ যেন অযথা হয়রানির শিকার না হন সেদিকে লক্ষ রাখতে হবে। মামলার আলামত, সাক্ষী এবং অন্যান্য তথ্যাদি সঠিকভাবে উপস্থাপন করা গেলে মামলায় সাজার হার সর্বোচ্চ পর্যায়ে উন্নীত করা সম্ভব। ৩০ জন কর্মকর্তা প্রশিক্ষণ সম্পন্ন করার পর সনদ বিতরণ করেন দুদক সচিব।

এ সময় কমিশনের প্রশিক্ষণ বিভাগের পরিচালক মো. আবু সাঈদ, প্রশাসন বিভাগের পরিচালক মো. জালাল সাইফুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত