বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

মানবতাবিরোধী অপরাধ

নেত্রকোনার দুজনের রায় যেকোনো দিন

আপডেট : ০৮ মার্চ ২০১৯, ০৪:১৭ এএম

একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় নেত্রকোনার আটপাড়া উপজেলার হেদায়েতুল্লাহ ওরফে আঞ্জু (৮০) ও সোহরাব আলী ওরফে ছোরাপের (৮৮) রায় যেকোনো দিন দেওয়া হবে। যুক্তিতর্কের চূড়ান্ত শুনানি শেষে গতকাল বৃহস্পতিবার বিচারপতি শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বে তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল এক আদেশে যেকোনো দিন রায় ঘোষণা করা হবে মর্মে তা অপেক্ষমাণ রাখে।

এই দুই আসামির বিরুদ্ধে একাত্তরে হত্যা, গণহত্যা, আটক, নির্যাতন, অগ্নিসংযোগসহ মানবতাবিরোধী অপরাধের ছয়টি অভিযোগ আনা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে ৪০ সাক্ষী সাক্ষ্য দেন। রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন প্রসিকিউটর তাপস কান্তি বল। আসামিপক্ষে ছিলেন আইনজীবী আবদুস শুকুর। প্রসিকিউটর তাপস দেশ রূপান্তরকে জানান, এ মামলার তিন আসামির মধ্যে অভিযোগ গঠনের আগেই এনায়েতুল্লাহ মঞ্জু (৭০) নামে একজন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। ফলে তার নাম মামলা থেকে বাদ দেওয়া হয়। তিনি আরও বলেন, ‘চার কার্যদিবসে যুক্তিতর্কের শুনানি শেষে আদালত এই মামলার রায় যেকোনো দিন ঘোষণা করা হবে উল্লেখ করে তা অপেক্ষমাণ রেখেছে।’ একাত্তরে আটপাড়া থানার মধুয়াখারী, মোবারকপুর ও সুখারী ও মদন থানার মদন গ্রামে মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে তিনজনের বিরুদ্ধে এ মামলার বিচারকাজ শুরু হয়। পরে ২০১৭ সালের ২৫ জানুয়ারি আসামি মঞ্জু ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। এর আগে একই বছরের ১০ জানুয়ারি আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ আমলে নেওয়ার আদেশ দেয় ট্রাইব্যুনাল। আসামি আঞ্জু ও ছোরাপ কারাগারে রয়েছেন। তিনজনের বাড়িই আটপাড়ার কুলশ্রীতে। ২০১৬ সালের ৮ সেপ্টেম্বর তাদের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করে ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত