রোববার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

‘আমিও কুইজ জমা দেওয়া শুরু করব’

আপডেট : ১২ ডিসেম্বর ২০২২, ০১:০২ এএম

‘এই কুইজ যে আমি জিতব তা বিশ্বাস হচ্ছিল না। ফুটবল বিশ্বকাপ যতদিন থাকবে ব্রাজিল আর আর্জেন্টিনার ফুটবলপ্রেমিকদের মাঝে তর্ক থেকে যাবে। তবে আমি মনে করি আর্জেন্টিনা জিতবে এবার কাপ’ বলছিলেন কুইজ-২০ এর বিজয়ী মাসুদ।

অন্যদিকে কুইজ-১৯-এর বিজয়ী মো. ইসহাক বলেন, ‘লটারির মাধ্যমে যে আমি জিতেছি, আমার অনেক ভালো লেগেছে। দেশ রূপান্তরের এত সুন্দর আয়োজন সবসময় হোক সেটা প্রত্যাশা করি।’

বিশ্বকাপ ফুটবল উপলক্ষে দায়িত্বশীলদের দৈনিক দেশ রূপান্তর করেছে সবচেয়ে বড় আয়োজন। বুরুচাগা, ভেরন, জিকোর মতো কিংবদন্তি ফুটবলারদের নিয়মিত কলাম ছাড়াও পাঁচটি বিশ্বকাপ কুইজ প্রকাশিত হচ্ছে দেশ রূপান্তরের পাতায়। রূপায়ণ সিটি, র‌্যাংগস, ভিসতা, ওয়ালটন ও বসুন্ধরা কিংসের সহায়তায় আয়োজিত এ পুরস্কারগুলোর প্রত্যেকটিতেই থাকছে লোভনীয় সব উপহার। রূপায়ণ সিটি মেগা কুইজের পুরস্কার হিসেবে আছে রূপায়ণ সিটির সৌজন্যে একটি রেডি ফ্ল্যাট।

বসুন্ধরা কিংসের সৌজন্যে দেশ রূপান্তর-বসুন্ধরা কিংস প্রতিদিনের কুইজে অংশ নিয়ে প্রতিদিন একজন পাঠক জিতে নিচ্ছেন একটি করে ট্যাব।

গতকাল রবিবার কুইজের ড্র ও পুরস্কার প্রদান আয়োজনে অতিথি ছিলেন বেঙ্গল কমার্শিয়াল ব্যাংক লিমিটেডের হেড অব কমিউনিকেশনস নাজিয়া খানম কণা। তিনি কুইজ ১৮-এর বিজয়ী নবাবপুরের মাসুদ এবং ১৯-এর বিজয়ী গুলশানের মো. ইসহাকের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। তার আগে এই জনপ্রিয় সংবাদ উপস্থাপিকা দেশ রূপান্তরের বিশ্বকাপ আয়োজনের প্রশংসা করে বলেন, ‘ফ্ল্যাটটি আমি পেতে চাই, ফলে কাল থেকেই আমি কুইজ জমা দেওয়া শুরু করব, এ চান্স মিস করা ঠিক হবে না কারোই।’

দেশ রূপান্তরের মফস্বল সম্পাদক খালিদ হাসান নিয়াজ বলেন, ‘দেশের প্রান্তিক সব গ্রাম-শহর থেকেও মানুষ অংশগ্রহণ করছে বিশ্বকাপ কুইজে, এটা নিঃসন্দেহে দেশ রূপান্তরের সফলতা।’

ড্র আয়োজনে এরপর অজস্র সঠিক উত্তরের মধ্যে থেকে কুইজ ২০-এর বিজয়ী দক্ষিণ পীরবাগের শামীমের নাম তোলেন অতিথিরা। আজ সোমবার সন্ধ্যায় কুইজের ড্র আয়োজনে তার হাতে বসুন্ধরা কিংসের ট্যাব তুলে দেওয়া হবে।

দেশ রূপান্তরের হেড অব ইভেন্টস অ্যান্ড ব্র্যান্ডিং শিমুল সালাহ্উদ্দিনের উপস্থাপনায় গতকাল সন্ধ্যায় অতিথি নাজিয়া খানম কণা ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন দেশ রূপান্তরের হেড অব সেলস অ্যান্ড মার্কেটিং মিজানুর রহমান, মফস্বল সম্পাদক খালিদ হাসান নিয়াজ, বিপণন বিভাগের সহমহাব্যবস্থাপক শফিকুল ইসলাম, ব্যবস্থাপক ওবায়দুর রহমান প্রমুখ।

   
সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত