মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

শান্ত ঝড়ে বরিশালকে ১৭৪ রানের লক্ষ্য দিয়েছে সিলেট

আপডেট : ২৪ জানুয়ারি ২০২৩, ০৩:১৮ পিএম

লড়াই মাঠে গড়ানোর আগে টস ভাগ্যে হেরে যায় সিলেট স্ট্রাইকার্স। ব্যাটিংয়ে নেমে দুই ওভারেই নেই তিন টপ অর্ডার। তারপরের গল্পটা শুধুই নাজমুল হাসান শান্তর। নামের সঙ্গে মিল রেখে মিরপুরে ঝড় তুলেছিলেন শান্তভাবে। তাতে ফরচুন বরিশালের বিপক্ষে সিলেট পেয়েছে ১৭৩ রানের বড় সংগ্রহ।

কলিন অ্যাকারম্যান আগেই একাদশে জায়গা হারিয়েছেন। আজ ছিলেন না মোহাম্মদ হারিসও। শান্তর সঙ্গে আজ ওপেনিংয়ে নামেন সদ্য টেস্ট ক্রিকেটের চুক্তিতে জায়গা পাওয়া জাকির হাসান। তবে জাতীয় দলের চুক্তিতে নাম লেখানোর পর প্রথমবার ব্যাট হাতে নেমে হয়েছেন ব্যর্থ। প্রথম বলেই ফিরে যান তিনি। মোহাম্মদ ওয়াসিমের শিকার হয়েছেন রানের খাতা খোলার আগেই।

জাকিরের বিদায়ে তিনে ব্যাট করতে নেমেছিলেন চোট কাটিয়ে দলে ফেরা তৌহিদ হৃদয়। ইনজুরিতে পড়ার আগে যিনি টানা তিন ম্যাচে অর্ধশতরানের ইনিংস খেলেছিলেন। আজ মাঠে নেমেই চার মেরে যেন সে আভাসই দিয়েছিলেন। তবে সকালের সূর্য যেমন সবসময় সারাদিনের পূর্বাভাস দেয় না, তেমনি হৃদয়ও টিকতে পারলেন না। ফিরে গেলেন পরের ওভারের পঞ্চম বলেই। হৃদয়ের বিদায়ে মাঠে নেমে মুশফিকুর রহিম ক্রিজে স্থায়ী হলেন মাত্র এক বল।

দ্রুত তিন উইকেট হারানো সিলেট চাপে পড়ে। সেই চাপ সামাল দেন নাজমুল শান্ত। সঙ্গী হিসেবে পেয়েছিলেন টম মুরসকে। চতুর্থ উইকেটে দুজনে মিলে গড়েন ৮১ রানের জুটি। ৩০ বলে ৪০ রান করে আউট হয়ে যান মুরস। তবে অন্যপ্রান্ত আগলে রেখে অপরাজিত থাকেন শান্ত। ৬৬ বল খেলে ৮৯ রান করেন তিনি। তার ব্যাট থেকে আসে ১১টি চার ও ১টি ছক্কা। এছাড়া থিসারা পেরেরা করেছেন ১৬ বলে ২১ রান।

বরিশালের হয়ে ৩৪ রান দিয়ে তিন উইকেট শিকার করেছেন মোহাম্মদ ওয়াসিম। সাকিব আল হাসান ১১ রান দিয়ে একটি ও কামরুল ইসলাম ৩১ রান দিয়ে ১ উইকেট শিকার করেন।

১৭৪ রানের লক্ষ্য নিয়ে একটু পর ব্যাটিংয়ে নামছে বরিশাল।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত