রোববার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

৬ মাস আগে খুন হওয়া মালয়েশিয়া প্রবাসীর লাশ দেশে

আপডেট : ০১ এপ্রিল ২০২৩, ০৬:৪৮ পিএম

৬ মাস আগে মালয়েশিয়ায় অপহরণকারীদের হাতে খুন হওয়া বাংলাদেশি সোহেলের লাশ টাঙ্গাইলের গ্রামের বাড়িতে এসে পৌঁছেছে।

শনিবার (১ এপ্রিল) অ্যাম্বুলেন্সযোগে তার লাশ জেলার ঘাটাইল উপজেলার দক্ষিণ ধলাপাড়া গ্রামে নিয়ে যাওয়া হয়। এর আগে রাত ৩টার দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আসে সোহেলের কফিন। লাশ দেখে কান্নায় ভেঙে পড়েন একমাত্র ছেলে হারানো মা আমিনা বেগম ও আত্মীয়স্বজনরা। তারা হত্যাকারীদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও তাদের শাস্তি দাবি জানান।

অল্প বয়সে বাবাকে হারিয়ে সংসারের হাল ধরতে ১৫ বছর আগে মালয়েশিয়া পাড়ি জমান টাঙ্গাইলের ঘাটাইল উপজেলার দক্ষিণ ধলাপাড়া গ্রামের আহমেদ মিয়ার ছেলে সোহেল। সেখানে একটি কারখানায় কাজ করতেন তিনি।

২০২২ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর রাতে মালয়েশিয়ার তামিলজায়া এলাকার বাসার কাছ থেকে অপহরণ করা হয় সোহেলকে। মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে ২৭ সেপ্টেম্বর ৫ লাখ টাকা মুক্তিপণও আদায় করে অপহরণকারীরা। তারপর মুক্তি না পাওয়ায় মালয়েশিয়ায় দুটি মামলা করেন সোহেলের মামা মিজানুর। মামলার প্রেক্ষিতে কাজং থানা পুলিশ চার প্রবাসী বাংলাদেশিকে গ্রেপ্তার করে। পরে তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ৬ অক্টোবর কুয়ালালামপুর থেকে ৩০ কিলোমিটার দূরে জায়া ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক এলাকার একটি জঙ্গল থেকে ৩৯ বছর বয়সী সোহেলের লাশ উদ্ধার করা হয়। অর্ধগলিত লাশের হাত ও মুখ টেপ ও সারং দিয়ে বাঁধা ছিল। ৬ মাস অপেক্ষার পর লাশ দেশে আসলো।

এ বিষয়ে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সাখাওয়াত সেন বলেন, সোহেলকে অপহরণের পর হত্যার ঘটনায় মালয়েশিয়া ও বাংলাদেশ মামলা হয়েছে। আজ তার লাশ দেশে এসেছে। হত্যার ঘটনায় আইনি ব্যবস্থা চলমান রয়েছে।

   
সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত