শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

উঁচু ঝরনার পানি আসে পাইপে

আপডেট : ১০ জুন ২০২৪, ০২:২০ এএম

দর্শনার্থী টানতে চীনের একটি পাহাড়ি ঝরনা ঘিরে যে আয়োজন করা হয়েছে বিচিত্র কাণ্ড। কৌতূহলবশত দেশটির ইয়ুনতাই পাহাড়ি ঝরনার উৎস দেখতে ওই পাহাড়ের চূড়ায় ওঠেন এক পর্বতারোহী। তিনি সেখানে গিয়ে দেখলেন দেশটির সবচেয়ে উঁচু ঝরনার পানি আসছে পাইপ থেকে। এই নিয়ে একটি ভিডিও ধারণ করে পরে সেটি পোস্ট করেন টিকটকের চীনা সংস্করণ দোয়িন-এ। এ নিয়ে শোরগোল পড়ে গেছে দেশটির সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে।

ভিডিওটির ক্যাপশনে ‘ফারিসভভ’ নামের ওই  পর্বতারোহী লেখেন, ‘কীভাবে আমি এত কষ্ট করে ইয়ুনতাই ঝরনার উৎস দেখতে গিয়ে শুধু একটা পাইপ দেখে ফিরলাম।’ 

৩১২ মিটার উঁচু ইয়ুনতাই ঝরনা ইয়ুনতাই মাউন্টেন জিওপার্কের ভেতরে অবস্থিত। এটি জাতিসংঘের শিক্ষা, গবেষণা ও সংস্কৃতিবিষয়ক সংস্থা ইউনেসকো ঘোষিত একটি বৈশ্বিক জিওপার্ক। চীনের মধ্যাঞ্চলীয় প্রদেশ হেনানে এর অবস্থান।

ভিডিওটি পোস্ট করার পর এ নিয়ে শোরগোল পড়ে যায়। ভিডিওটি পোস্ট করার পর এতে ৭০ হাজারের বেশি প্রতিক্রিয়া পড়ে। চীনের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম উইবোতেও বিতর্ক শুরু হয়। এ নিয়ে হাস্যরসের পাশাপাশি কেউ কেউ কর্র্তৃপক্ষের এ ধরনের কর্মকাণ্ডের কড়া সমালোচনা করেছেন।

দোয়িন-এ এক ব্যবহারকারী মন্তব্য করেন, ‘ইয়ুনতাই পার্ক : এই লোকের (পর্বতারোহী) কি-এর চেয়ে ভালো কিছু করার ছিল না।’ উইবোতে আরেকজন লিখেছেন, ‘আমি মনে করি, কাজটি করে (কর্র্তৃপক্ষ) ভালোই করেছে। অন্যথায় ঘুরতে গিয়ে সেখানে কিছুই দেখতে না পেয়ে লোকজন হতাশ হতো।’

তবে অনেকেই এ ঘটনার কড়া সমালোচনা করেছেন। উইবো ব্যবহারকারী একজন লিখেছেন, এটি প্রাকৃতিক ব্যবস্থার প্রতি সম্মান প্রদর্শন নয়। পর্যটকদের প্রতিও সম্মান দেখানো হয়নি। দোয়িন-এ আরেকজন লিখেছেন, এখন থেকে কীভাবে এটাকে এক নম্বর ঝরনা বলা হবে!

বিতর্কের মুখে বিষয়টি তদন্ত শুরু করে স্থানীয় সরকার। শেষ পর্যন্ত মুখ খুলতে বাধ্য হয় পার্ক কর্র্তৃপক্ষও। তারা বলছে, শুষ্ক মৌসুমে বেড়াতে এসে পর্যটকরা যাতে ঝরনার সৌন্দর্য উপভোগ থেকে বঞ্চিত না হন, সে জন্যই এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত