সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ২ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

হাইওয়ে পুলিশের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী

সড়কে চাঁদাবাজির অভিযোগ উড়িয়ে দিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

আপডেট : ১২ জুন ২০২৪, ০২:৪৩ এএম

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে হাইওয়ে পুলিশের ভূমিকার প্রশংসা করেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। তিনি বলেন, ‘মহাসড়কে যানবাহন চলাচলে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে, যান চলাচল ব্যবস্থা স্বাভাবিক রাখার লক্ষ্যে ইতিমধ্যে হাইওয়ে পুলিশে ড্রোন সংযোজন করা হয়েছে।’ এ সময় তিনি হাইওয়ে পুলিশের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির অভিযোগ নাকচ করে দেন।

গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর রাজারবাগ পুলিশ লাইনসে হাইওয়ে পুলিশের ১৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

তিনি বলেন, হাইওয়ে পুলিশের তৎপরতার ফলে গত ঈদুল ফিতরে জনগণের যাত্রা স্বস্তিদায়ক হয়েছে। তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন, এবার ঈদুল আজহায়ও জনগণ নির্বিঘ্নে তাদের নিজ নিজ গন্তব্যে পৌঁছাতে পারবেন। এ ছাড়া সড়কে নিরাপত্তা দেওয়ার পাশাপাশি মাদক পরিবহন বন্ধে কাজ করার জন্য হাইওয়ে পুলিশকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

সড়ক-মহাসড়কে বিভিন্ন সময় অবৈধ মালামাল ও ফিটনেস না থাকলে গাড়ি থামিয়ে তল্লাশি করা হয়, এটাকে চাঁদাবাজি বলা যায় না বলে মনে করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। তিনি বলেন, ‘যারা বলছেন, সড়কে চাঁদাবাজি হয়, তাদের বলব, আমাদের কাছে তালিকা দিন। আমরা সেই তালিকা অনুসারে ব্যবস্থা নেব।’

এ সময় হাইওয়ে পুলিশের জনবল ও যানবাহন সংকটের কথা উল্লেখ করেন মন্ত্রী। তবে তিনি সড়কে কঠোর আইন প্রয়োগের জন্য হাইওয়ে পুলিশের প্রতি আহ্বান জানান।

হাইওয়ে পুলিশের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে পুলিশ মহাপরিদর্শক (আইজিপি) চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুনের সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন হাইওয়ে পুলিশপ্রধান অতিরিক্ত আইজিপি মো. শাহাবুদ্দিন খান। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি বেনজীর আহমদ, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সচিব মো. জাহাংগীর আলম, অতিরিক্ত আইজিপি (প্রশাসন) মো. কামরুল আহসান, স্পেশাল ব্রাঞ্চের প্রধান অতিরিক্ত আইজিপি মো. মনিরুল ইসলাম, পুলিশ স্টাফ কলেজের রেক্টর ও অতিরিক্ত আইজিপি মল্লিক ফকরুল ইসলামসহ পুলিশের অতিরিক্ত আইজি, ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তা, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক-শ্রমিক নেতারা।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত