বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

মুসলিম দেশের ঈদের খাবার

আপডেট : ১৫ জুন ২০২৪, ০২:৩০ এএম

বিশ্বের মুসলিমরা এই সপ্তাহে পবিত্র ঈদুল আজহা উদযাপনের প্রস্তুতি নিচ্ছে। ইসলাম ধর্মের প্রথা অনুযায়ী অবস্থাসম্পন্ন মুসলিম পরিবারগুলোকে পশু কোরবানিতে অংশ নিতে হয়। বিলিয়ে দিতে হয় মাংসের এক-তৃতীয়াংশ। ঈদুল আজহায় মাংসের তৈরি খাবারের আধিক্যই বেশি থাকে। এমন সময় বিভিন্ন মুসলিম দেশের ঈদের খাবারগুলো রান্না করে খেতে পারেন। লিখেছেন জান্নাতুল ফেরদৌসী

বুলফাফ

মরক্কোর সবচেয়ে জনপ্রিয় খাবার বুলফাফ। এটা তৈরি হয় গরু বা ভেড়ার কলিজা দিয়ে। কলিজা মিডিয়াম সাইজে কিউব করে  কেটে নেওয়া হয়।  চর্বি থাকলে কেটে ফেলে দিতে হবে। এরপর দিতে হবে চুলায়, গ্রিলড করতে। অল্প আঁচে, দুদিকেই দিতে হবে তাপ। কয়েক মিনিট ধরে। তারপর নামিয়ে নিন। ছোট ছোট কিউব করুন। লক্ষ্য রাখুন কলিজা আধা সিদ্ধ রয়েছে কিনা। এরপর একটা পাত্রে নিন। মিশিয়ে দিন পরিমাণ মতো পাপরিকা, জিরা গুঁড়া,  গোলমরিচ ও লবণ। এবার আগেই চর্বি লম্বা লম্বা করে কেটে রাখুন। মসলা মাখানো কলিজার কিউবগুলো মুড়িয়ে নিতে হবে চুর্বির টুকরা দিয়ে। মূলত লিভারের চারপাশে মোড়ানো চর্বির জালটিই এর বিশেষত্ব। এরপর স্টিকের সাহায্যে কিউবগুলো গ্রিলড করতে হবে কয়েক মিনিট। দুদিকে উল্টে দিতে হবে। হ্যাঁ, বুলফাফ এভাবেই তৈরি হবে।

ফাত্তাহ

ফাত্তাহ হলো মিসরের ক্ল্যাসিক খাবার। খাবারটি প্রায় সব বড় অনুষ্ঠানে পাওয়া যায়। যেমন বিয়ে, ঈদুল আজহা। আসলে এটি হলো একই সঙ্গে মাংস, ভাত, রুটি এবং টমেটো সসের একটা ডিশ। মিসরের এই খাবারটি অন্য আরব দেশগুলোর কাছে লাল সসের ফাত্তাহ নামে পরিচিত।

ফাত্তাহ তৈরি করতে লাগবে ঘি, আনসলটেড বাটার। পরিমাণ মতো টুকরা করা মাংস। সেটি বাটার গলিয়ে সিদ্ধ করতে হবে। বাদামি রঙ ধারণ করলে দিতে হবে তেজপাতা, চিনি, কালো মরিচ এবং এলাচ দিয়ে নাড়তে হবে। পেঁয়াজ, রসুন, গাজর দিতে হবে। সব একসঙ্গে ভালো করে মিশিয়ে নিন। তুলে নিন ভেসে ওঠা তৈলাক্ত ফেনা। ফেনাটা রেখে দিন। সিদ্ধ হয়ে গেলে আঁচ কমান। রান্না শেষ হওয়ার ৫ মিনিট আগে লবণ দিন। অন্য একটি মাঝারি উচ্চতার পাত্রে বাটার ও ফেনা দিন। অপেক্ষা করুন। সুগন্ধী চাল দিন। নাড়ুন কিছুক্ষণ, যতক্ষণ বাটারের মিশ্রণ ঢেকে যায়। এবার তুলে রাখা ফেনা ঢালুন। আঁচ কমিয়ে রাখুন ১৫ মিনিট। এদিকে রুটি কেটে নিন। বাদামি না হওয়া পর্যন্ত ওভেনে টোস্ট করুন। এখন চাই টমেটো সস। তার রেসিপি তো জানেনই।

ক্যাবসা

ক্যাবসা একটি জনপ্রিয় সৌদি খাবার। খুব সহজেই তৈরি করতে পারবেন এই পদ। মুরগি, ছাগল বা গরুর মাংস দিয়ে এটি তৈরি করা যায়। চুলায় মাঝারি আঁচে পাত্র বসান। সিকি কাপ তেল দিন। তেল গরম হয়ে এলে পেঁয়াজ কুচি ও আদা বাটা দিয়ে নাড়তে থাকুন। বাদামি হয়ে এলে পাত্রে পরিমাণ মতো মাংস দিন। কিছুক্ষণ ভেজে বাদামি রঙ ধারণ করলে লবণ, অরেঞ্জ জেস্ট, গোলমরিচ গুঁড়া, এলাচ গুঁড়া, শুকনা লেবু, দারুচিনি গুঁড়া, লবঙ্গ গুঁড়া দিয়ে ভালোভাবে নাড়ুন।

পাত্রে টমেটো পেস্ট ও টমেটো কুচি দিন। তেল উপরে উঠলে পানি দিন। ২৫ মিনিটের জন্য মিডিয়াম হাই আঁচ। রান্না হোক। পাত্র রাখুন ঢেকে। পরিবেশনের জন্য চাই আরেকটা পাত্র। মিডিয়াম হাই আঁচ। ২ টেবিল চামচ তেল, ২ টুকরা সিদ্ধ কাঠবাদাম। বাদামি রঙ না আসা পর্যন্ত নাড়তে থাকুন। সেগুলো আরেকটি পাত্রে টিস্যু বা সোকিং পেপারে রাখুন, অতিরিক্ত তেল শুষে নিক।

আগে থেকে কিশমিশ ভাজুন। ভাজার পর বাদামের সঙ্গে সোকিং পেপারে রাখুন। ওইদিকে পাত্র থেকে মুরগির মাংস তুলে নিন। একই পাত্রে দিতে হবে চাল, গ্রেটেড গাজর। পানিও। একটু নেড়ে পাত্রটি কাপড় দিয়ে ঢেকে দিন। এরপর ২০ মিনিট, আঁচ মিডিয়াম হাই। ওদিকে তুলে রাখা মাংস বেকিং প্যানে নিয়ে ৫-১০ মিনিট দিন ওভেনে। এবার ভাত নিন। তার ওপর মুরগির মাংস আর ভেজে রাখা বাদাম-কিশমিশ ছড়িয়ে দিন। হয়ে গেছে সৌদি পদ, ক্যাবসা।

তারিদ লাহাম

সংযুক্ত আরব আমিরাতের মাটন পদ তারিদ লাহাম। পাত্রে পরিমাণ মতো তেল ও ঘি গরম করুন। তেজপাতা, এলাচ, দারুচিনি, লবঙ্গ দিন। এক মিনিট ভাজুন। কাটা পেঁয়াজ, আদা-রসুন বাটা ও কাঁচা মরিচ দিন। ৫ মিনিটের জন্য রান্না করুন। কিউব করা টমেটো দিতে হবে। লবণ, টমেটো পেস্ট, শুকনা লেবু দিয়ে মেশাতে হবে। দিতে হবে এক চা চামচ করে পেপারিকা, জিরা গুঁড়া, হলুদ গুঁড়া, গোলমরিচ গুঁড়া। আঁচে রাখুন আরও কয়েক মিনিট। মাটন দিন। অন্তত ৫০০ গ্রাম। মসলা ভালোভাবে মিশে না যাওয়া পর্যন্ত মেশান। পর্যাপ্ত গরম পানি দিতে হবে। মাটন নরম এবং মিহি না হওয়া পর্যন্ত ঢেকে রান্না করুন। ধনেপাতা মেশান। কিউব করা এক কাপ আলু দিতে পারেন। আরও ৫ মিনিটের জন্য রান্না করুন। বেশি রান্না করা ঠিক হবে না। তবে এটা অবশ্যই নরম হতে হবে। লবণ ঠিক আছে কিনা দেখে নিতে হবে। এরপর দিতে হবে কাটা খুবুজ বা রুটি। ভালোভাবে মেশাতে হবে। ঢেকে রেখে কম আঁচে রান্না করতে হবে, যতক্ষণ না গ্রেভি হয়ে আসে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত