লায়নে লিড অস্ট্রেলিয়ার|111659|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ২০:৫৯
লায়নে লিড অস্ট্রেলিয়ার
অনলাইন ডেস্ক

লায়নে লিড অস্ট্রেলিয়ার

ছবি: বিসিসিআই ফেসবুক

একাধিক মাইলফলক গড়ে সেঞ্চুরি করলেন বিরাট কোহলি। কিন্তু অধিনায়কের সেঞ্চুরির পরও পার্থ টেস্টে লিড নিতে পারেনি ভারত। বরং নাথান লায়নের ৫ উইকেট শিকারের দিনে সুবিধা জনক অবস্থানে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া।

প্রথম ইনিংসে ৪৩ রানের লিড নেওয়া অস্ট্রেলিয়া দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে তৃতীয় দিন শেষে করেছে ৪ উইকেটে ১৩২ রান। স্কোর বোর্ডে এখন পর্যন্ত লিড জমা পড়েছে ১৭৫ রানের। প্রথম ইনিংসে অস্ট্রেলিয়ার ৩২৬ রানের বিপরীতে ২৮৩ রানে থামে ভারতের ইনিংস।

আগের দিনের ৩ উইকেটে ১৭২ রান নিয়ে নতুন দিনের খেলা শুরু করে ভারত। কোহলি ৮২ ও আজিঙ্কা রাহানে ৫১ রান নিয়ে দিন শুরু করেন।

রাহানেকে হারিয়ে দিন শুরু হয় ভারতের। আগের দিনের সঙ্গে আর কোনো রান যোগ না করেই লায়নের প্রথম শিকারে পরিণত হন। পঞ্চম উইকেটে হানুমা বিহারিকে নিয়ে ৫০ রানের জুটি গড়েন কোহলি। পূর্ণ করেন নিজের ২৫তম টেস্ট সেঞ্চুরিও।

কোহলি ২৫ সেঞ্চুরি করলেন ১২৭ ইনিংসে। ডন ব্র্যাডম্যানের পর এত কম ইনিংস খেলে কেউ এত টেস্ট সেঞ্চুরি করতে পারেননি। ব্র্যাডম্যান ২৫ সেঞ্চুরি করতে সময় নিয়েছিলেন ৬৮ ইনিংস।

এ ছাড়া অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে এটা কোহলির ষষ্ঠ শতক। খেলেছেন মাত্র ১৯ ইনিংস। অস্ট্রেলিয়া সফরকারী বিদেশিদের মধ্যে ৪৫ ইনিংসে ৯ সেঞ্চুরি নিয়ে সবার ওপরে আছেন জ্যাক হবস। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে ওয়ালি হ্যামন্ডের ৭ সেঞ্চুরি করতে ৩৫ ইনিংস লেগেছিল। এ ছাড়া অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে ভারতীয়দের পক্ষে শচীন টেন্ডুলকারের সমান সেঞ্চুরি (৬টি) এখন কোহলির।

তবে কোহলির ব্যক্তিগত অর্জন দলকে লিড এনে দিতে পারেনি। ১২৩ রানে প্যাট কামিন্সের বলে হ্যান্ডসকম্বের বিতর্কিত ক্যাচের শিকার হয়েছেন। বেনিফিট অব ডাউট পাননি কোহলি। অথচ রিপ্লে দেখে ক্যাচটি নিয়ে সন্দেহ থেকেই গেছে। কোহলি আউট হওয়ার পর ভারতের ইনিংস শেষ হতে বেশি সময় লাগেনি। ২৮৩ রানে অলআউট হয়েছে তারা।

সর্বাধিক ৫ উইকেট শিকার করেন লায়ন। রাহানের পর মোহাম্মদ শামি, ইশান্ত শর্মা, রিভশ পান্ত ও জসপ্রিত বুমরাহকে ফেরান তিনি।

অজিরা দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিং করতে নেমে শুরুটা ভালোই করেছিল। শামির বলে আঙুলে আঘাত পাওয়ার পরে ৫৯ রানে অস্ট্রেলিয়া প্রথম উইকেট হারায়। এরপর শন মার্শ ও পিটার হ্যান্ডসকম্ব বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি।

অন্যপ্রান্তে অবশ্য অবিচল ছিলেন উসমান খাজা। দিন শেষে তিনি ৪১ রানে অপরাজিত। ৮ রানে ব্যাটিং করছিলেন টিম পেইন।

আঘাত পাওয়া অ্যারন ফিঞ্চ সোমবার আবার ব্যাট হাতে মাঠে নামতে পারবেন বলে আশা অস্ট্রেলিয়ান টিম ম্যানেজমেন্টের। এক্স-রে রিপোর্টে চিড় ধরা পড়েনি তার। তবে আঙুল ফুলে আছে।