টেকনাফ সীমান্তে মিয়ানমার পুলিশের গুলিবিদ্ধ লাশ |112691|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৩ ডিসেম্বর, ২০১৮ ১৭:৪৭
টেকনাফ সীমান্তে মিয়ানমার পুলিশের গুলিবিদ্ধ লাশ
অনলাইন ডেস্ক

টেকনাফ সীমান্তে মিয়ানমার পুলিশের গুলিবিদ্ধ লাশ

বাংলাদেশের টেকনাফ সীমান্তে এক পুলিশ সদস্যের লাশ পাওয়া গেছে বলে দাবি করেছে মিয়ানমার। গত সপ্তাহে সীমান্ত টহলের সময় তিনি নিখোঁজ হয়েছিলেন বলে জানায় দেশটির কর্মকর্তারা।

রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা গ্লোবাল নিউ লাইট অব মিয়ানমারের বরাত দিয়ে রবিবার রয়টার্স জানায়, ১৭ ডিসেম্বর সীমান্ত টহলের সময় বাংলাদেশের ভেতর থেকে গুলি ছোঁড়ার ঘটনা ঘটে। তখন থেকে পুলিশ সদস্য অং কেয়াও থেত  নিখোঁজ ছিলেন। শুক্রবার সীমান্ত নিকটবর্তী স্থান থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়।

মিয়ানমার জানায়, তার চেহারা, হাত এবং পায়ে গুলিবিদ্ধের ছাপ স্পষ্ট। এছাড়া গত সপ্তাহের ঘটনায় আরেক পুলিশ সদস্য আহত হয়েছিলেন।

‘রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীরা’ই এ হামলা চালিয়েছে বলে দাবি মিয়ানমার সেনাবাহিনীর।  রাখাইন রাজ্যের মংদু শহরের সীমান্তে এ ঘটনা ঘটে। ২০১৭ সালের আগস্টে রাজ্যটিতে দেশটির সেনাবাহিনী ও উগ্রবাদি বৌদ্ধদের হামলা ও নিপীড়নের শিকার হয়ে প্রায় সাড়ে সাত লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশের কক্সবাজার জেলার টেকনাফে পালিয়ে আসে। এসব রোহিঙ্গার বড় অংশই এই মংদু এলাকার।

তবে বাংলাদেশের সীমান্ত বাহিনী বিজিবির কর্মকর্তা মেজর মোহাম্মদ ইকবাল বলেন, “১৭ ডিসেম্বরের ঘটনার সঙ্গে আমাদের কোনো ধরনের সম্পৃক্ততা নেই।” তবে সীমান্ত এলাকায় গোলাগুলির শব্দ শুনেছেন বলে জানান তিনি।