কাকাবাবুর প্রত্যাবর্তন|113264|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ১৭:৩৭
কাকাবাবুর প্রত্যাবর্তন
অনলাইন ডেস্ক

কাকাবাবুর প্রত্যাবর্তন

‘ইয়েতি অভিযান’-এর পোস্টার থেকে। ছবি: এসভিএফ

মরুভূমি, পাহাড় ঘুরিয়ে কাকাবাবুকে এবার জঙ্গলে নিয়ে যাচ্ছেন সৃজিত মুখোপাধ্যায়। ২০১৯ সালের দুর্গা পূজা উপলক্ষে সিনেমাটি মুক্তি পাবে, শিরোনাম ‘কাকাবাবুর প্রত্যাবর্তন’।

সুনীল গঙ্গোপাধ্যায়ের গোয়েন্দা চরিত্রটি নিয়ে ট্রিলজির পরিকল্পনা করেছিলেন সৃজিত। যার শেষ হচ্ছে জঙ্গলে।

‘জঙ্গলের মধ্যে এক হোটেল’ গল্প অবলম্বনে সিনেমাটি নির্মিত হবে। দৃশ্যায়ন হবে কেনিয়ার। এ নিয়ে কলকাতার সংবাদমাধ্যমকে ‘চতুষ্কোণ’-খ্যাত নির্মাতা বলেন, “কেনিয়ার মাসাই মারা গেম রিজার্ভ ফরেস্টে পুরো ছবির শুটিং করব। মে-জুন মাসে ওখানে পশুদের মাইগ্রেশন হয়। জেব্রা বা অন্যান্য প্রাণীদের তখন সেই জঙ্গলে পাওয়া সম্ভব। ঠিক সে সময় শুটিং করতে চাই।”

যেহেতু মরুভূমি-পাহাড়-জঙ্গল ট্রিলজির শেষ পর্ব, এর পর কি কাকাবাবুকে নিয়ে ছবি হবে না? “নিশ্চয়ই হবে। সেটা কলকাতায় শুটিং হতেই পারে।” বললেন সৃজিত।

এর আগে এ সিরিজের মিশর রহস্য ও ইয়েতি অভিযান নির্মাণ করেন সৃজিত। ছবি দুটি ব্যবসাসফল হয়।

এ দিকে কাকাবাবুর প্রত্যাবর্তনে খুশি নাম ভূমিকার অভিনেতা প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। জানালেন, কাকাবাবু নিয়ে সব সময়ই উচ্ছ্বাসে থাকেন।

অবশ্য সিরিজের আগের দুই ছবি নানা কারণে সমালোচিত। এ প্রসঙ্গে সৃজিত বলেন, “প্রথম ছবিতে বেশ কিছু পরিবর্তন করেছিলাম বলে সমালোচিত হয়েছি। আবার ‘ইয়েতি অভিযান’-এ মূল গল্প থেকে একদমই সরিনি বলে কিছু জায়গায় চিত্রনাট্য দুর্বল বা অতি নাটকীয় লেগেছে বলে অনেকের মনে হয়েছে। দুই ছবি ঘিরে যাবতীয় সমালোচনা থেকে শিখেই এবার সেটাকে ব্যালান্স করার চেষ্টা করছি। বেশ কিছু জিনিস নিজের থেকে যোগ করছি এবার, যাতে ছবিটা অনেক টানটান হবে বলে মনে হয়।”