পানির নিচে চাষবাস |113409|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৭ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০
পানির নিচে চাষবাস
রূপান্তর ডেস্ক

পানির নিচে চাষবাস

ফাইল ছবি

চাষাবাদ বলতেই মাটির ওপরে শস্যের চেহারা ভেসে ওঠে। কিন্তু মাটির ওপরে জন্মানো এই শস্য দিয়েও বিশ্ববাসীর খাবারের চাহিদা মেটানো যাচ্ছে না। তাই ইতালির সাভোনা প্রদেশের নোলি অঞ্চলের সমুদ্রের তলদেশে গড়ে তোলা হয়েছে নিমজ্জিত গ্রিনহাউস।

জানি ফন্টানেসি নামের এক যুবক ওই গ্রিনহাউসে প্রায় ৪০টি গাছ লাগিয়েছেন এবং নিয়মিত পরিচর্যা করেন। সমুদ্রের লবণাক্ত পানি শোধন করে সেই পানি গাছে দেওয়া হয়। ‘নোমোস গার্ডেন’ নামের এই গ্রিনহাউস চেম্বারে নানান ফলমূল ও শাকসবজি নিয়ে চলছে পরীক্ষা-নিরীক্ষা।

ফন্টানেসি জানান, ‘এই চেম্বারে অনেক পানি ও সার রয়েছে। ভেতরে একটা পানির পাম্পও আছে। গোটা প্রক্রিয়া বেশ সহজ। পাম্প নিচে থেকে ওপরে একটি টিউবে পানি সরবরাহ করছে। টিউবের ওপরে নানা রকম গাছপালা রয়েছে, যেগুলো মাটি ছাড়াই বেড়ে উঠছে। সব শিকড়ের সঙ্গে পানির সরাসরি যোগাযোগ রয়েছে। মাধ্যাকর্ষণ শক্তির টানে পানি নিচের দিকে প্রবাহিত হচ্ছে।’ ইতালির এই অঞ্চল পর্যটকদের জন্য আকর্ষণীয় জায়গা বলেই সৈকত থেকে ১০০ মিটার দূরে ১০ মিটার গভীর সমুদ্রপৃষ্ঠে বসানো হয়েছে এই চেম্বার। চাষাবাদের সবকিছু ঠিক আছে কি না তা জানতে ফন্টানেসি সপ্তাহে ৩ থেকে ৫ বার পরীক্ষা করেন। পরীক্ষার ফলে কোনো ত্রুটি পাওয়া গেলে তা সারিয়ে ফেলেন। ফন্টানেসির এই প্রকল্প সম্পর্কে জানতে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে উৎসাহী মানুষ ভিড় করছে। অবশ্য এরই মধ্যে বেলজিয়াম, মরিশাস এবং যুক্তরাষ্ট্র খাদ্য সংকট মোকাবিলায় এমন নিমজ্জিত গবেষণাগার তৈরির কাজ হাতে নিয়েছে।

সূত্র: ডেইলি মেইল