ব্যায়ামে ব্যথা নাশ|113430|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৭ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০
ব্যায়ামে ব্যথা নাশ

 ব্যায়ামে ব্যথা নাশ

দুর্বল মাংসপেশির কারণে চল্লিশোর্ধ্ব নারীদের কোমর, পিঠ এবং হাঁটুতে ব্যথা হয়। সুস্থ জীবনযাপন করতে অবশ্যই ফিট থাকতে হবে। নিচের ব্যায়ামগুলো করলে কোমর, হাঁটু ও গোড়ালির ব্যথা দূর হয়ে আপনি ফিট থাকবেন। ব্যায়াম নিয়ে বিস্তারিত জানালেন মালিবাগ কমব্যাট জিমের মেয়েদের শাখার প্রশিক্ষক শামীমা আক্তার তুলি

পায়ের গোড়ালি

কাঠের চেয়ারের পেছনে দাঁড়ান। এক পায়ের ওপর ভর দিয়ে সোজা হয়ে দাঁড়ান। এবার অন্য পায়ের আঙুলের ওপর যতটা ভর করা যায় ততটা করে গোড়ালি উঁচু করে দাঁড়িয়ে থাকুন। এরপর আস্তে আস্তে আগের অবস্থায় ফিরে আসুন। দুই পায়ে এই ব্যায়াম ১০ থেকে ১৫ মিনিট করতে হবে। এতে হাঁটু, মাংসপেশি এবং গোড়ালির সক্ষমতা বাড়াবে।

 সোজা হয়ে মেঝেতে দাঁড়িয়ে এক পা ভাঁজ করে দুই হাত দিয়ে ধরে ওপরে তুলুন। এভাবে ২ থেকে ৩ মিনিট থাকুন। এরপর আগের অবস্থায় ফিরে আসুন। পুনরায় পা পরিবর্তন করে অন্য পায়ে করুন। হাঁটুর ব্যথা থাকবে না।

আঙুল

 খুবই সাধারণ ব্যায়াম। আঙুলের ওপর ভর দিয়ে আস্তে আস্তে হাঁটুন। যতক্ষণ না ক্লান্ত বোধ করছেন। প্রথম থেকে সময় বাড়িয়ে আস্তে আস্তে এটা ১৫ মিনিট করুন। মাংসপেশি সুদৃঢ় হবে।

 সোজা হয়ে দাঁড়ান। এরপর মেঝে স্পর্শ করে আঙুলের ওপর ভর দিয়ে দাঁড়ান। পায়ের গোড়ালি কোনোভাবেই যাতে মেঝে স্পর্শ না করে। শক্ত মেঝে সমস্যা মনে হলে তোয়ালে বিছিয়ে তার ওপর দাঁড়িয়েও করতে পারেন। এই ব্যায়ামটি প্রতিবারে ৩ মিনিট করে মোট ৯ মিনিট করুন।  আঙুলের দৃঢ়তা বাড়বে।

পায়ের তালু

 মেঝেতে টেনিস বল রাখুন। চেয়ারে বসুন। এক পা বলের ওপর রাখুন। পায়ের তালু দিয়ে ঘুরিয়ে ঘুরিয়ে আস্তে আস্তে বলের ওপর চাপ দিন। এক পায়ে ৫ থেকে ১০ মিনিট করে দুই পায়ে ম্যাসাজটা করুন। রক্ত সঞ্চালন বাড়িয়ে হাঁটুর ব্যথা দূর করবে।