logo
আপডেট : ১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২০:০৭
নারায়ণগঞ্জে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় চাইলে পারমিশন দিয়ে দেব : প্রধানমন্ত্রী
কমল খান, নারায়ণগঞ্জ

নারায়ণগঞ্জে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় চাইলে পারমিশন দিয়ে দেব : প্রধানমন্ত্রী

গণভবন থেকে সরাসরি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে নারায়ণগঞ্জ সদর ও রূপগঞ্জ উপেজলায় শতভাগ বিদ্যুতায়ন এর উদ্বোধনকালে প্রধানমন্ত্রী

প্রধাণমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, নারায়ণগঞ্জে অনেক অর্থশালী সম্পদশালী লোক আছে। বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় করতে কেউ এগিয়ে এলে পারমিশন  দিয়ে দেব।

বুধবার দুপুরে গণভবন থেকে সরাসরি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে নারায়ণগঞ্জ সদর ও রূপগঞ্জ উপেজলায় শতভাগ বিদ্যুতায়ন এর উদ্বোধনকালে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

এর আগে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সরাসরি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে নারায়ণগঞ্জ সরকারী মহিলা কলেজের শিক্ষার্থী আফরোজা আক্তার বলেন, প্রধানমন্ত্রী আমাদের নারায়ণগঞ্জে যদি একটি বিশ্ববিদ্যালয় হতো তাহলে আমাদের অনেক বেশি উপকার হতো, ভালো  হতো। উচ্চ শিক্ষার জন্য নারায়ণগঞ্জ থেকে অন্য কোথাও যেতে হতো না।

জেলা প্রশাসকের সভাপতিত্বে প্রধানমন্ত্রীর ভিডিও কনফারেন্সে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ-১ (রূপগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য এবং পাট ও বস্ত্রমন্ত্রী গাজী গোলাম দস্তগীর, নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য সেলিম ওসমান, নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন, জেলা পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবদুল হাই, সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত শহীদ বাদল, চেম্বার অব কমার্স এর সভাপতি খালেদ হায়দার খান কাজল প্রমুখ।

এছাড়া প্রধানমন্ত্রী রূপগঞ্জের জামদানি পল্লির খোঁজ খবর নিয়েছেন। তিনি একজন জামদানি উদ্যোক্তার সঙ্গেও কথা বলেছেন। নারায়ণগঞ্জে একটি মেডিকেল কলেজ ও একটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কথা একজন ছাত্রী প্রধানমন্ত্রীর কাছে তুলে ধরলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবস্থা আমরা করব। কোন বেসরকারি উদ্যোক্তা এলে আমরা দিয়ে দেব। নারায়ণগঞ্জে  অনেক অর্থশালী ব্যবসায়ী লোক আছে, তারা যদি আসে আমরা পারমিশন দিয়ে দেব।