ঈশ্বরদীতে বিএনপির কমিটিতে মৃত্যুদ-প্রাপ্ত দুই আসামি|179368|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ৯ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০
ঈশ্বরদীতে বিএনপির কমিটিতে মৃত্যুদ-প্রাপ্ত দুই আসামি
ঈশ্বরদী (পাবনা) প্রতিনিধি

ঈশ্বরদীতে বিএনপির কমিটিতে  মৃত্যুদ-প্রাপ্ত দুই আসামি

ঈশ্বরদীতে বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে হামলা মামলায় মৃত্যুদণ্ডাদেশপ্রাপ্ত আসামি বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও সাবেক পৌর মেয়র মকলেছুর রহমান বাবলুকে আহ্বায়ক করে পৌর বিএনপির কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। অন্যদিকে একই মামলার মৃত্যুদণ্ডাদেশপ্রাপ্ত আরেক আসামি পৌর বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক জাকারিয়া পিন্টুকে সদস্য সচিব করে উপজেলা বিএনপির পাল্টা কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ঈশ্বরদী শহরের ললিতকলা একাডেমি মিলনায়তনে ঐতিহাসিক ৭ নভেম্বর উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এ দুটি কমিটি ঘোষণা করা হয়। অনুষ্ঠানে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও পাবনা জেলা বিএনপির আহ্বায়ক হাবিবুর রহমান হাবিবকে ঈশ্বরদীতে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে ঈশ্বরদী উপজেলা ও পৌর বিএনপির একপক্ষ।

সভায় বিএনপি নেতা আহসান হাবীবকে আহ্বায়ক, খায়রুল ইসলামকে যুগ্ম আহ্বায়ক ও জাকারিয়া পিন্টুকে সদস্য সচিব করে উপজেলা কমিটি এবং বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও সাবেক পৌর মেয়র মকলেছুর রহমান বাবলুকে আহ্বায়ক, এসএম ফজলুর রহমানকে যুগ্ম আহ্বায়ক ও বিষ্টু সরকারকে সদস্য সচিব করে পৌর বিএনপির কমিটি ঘোষণা করা হয়। এ সময় উপস্থিত নেতাকর্মীরা নতুন আহ্বায়ক কমিটিকে স্বাগত জানিয়ে বিএনপি নেতা হাবিবের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সেøাগান দেন।

ঈশ্বরদী উপজেলা ও পৌর বিএনপির ব্যানারে ঐতিহাসিক ৭ নভেম্বর উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় বিএনপি নেতা আহসান হাবীবের সভাপতিত্বে বক্তব্য দেন বিএনপি নেতা খায়রুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর আলম, এসএম ফজলুর রহমান, সুমার খান, আমিনুর রহমান স্বপন, আতাউর রহমান পাতা, যুবদল নেতা সুলতান আলী বিশ্বাস টনি, আক্তার হোসেন নিফা, জাকির হোসেন জুয়েল, ছাত্রদল নেতা আওয়াল কবীর, মেহেদী হাসান, স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা মামুনুর রশিদ নান্টু, মাহামুদ হাসান সোনামনি প্রমুখ।

এর আগে গত ১ নভেম্বর ঈশ্বরদী উপজেলার সাহাপুর শহীদ আবুল কাশেম উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে বিএনপির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাদের উপস্থিতিতে সাবেক সাংসদ আবদুল বারী সরদারকে আহ্বায়ক ও আজমল হোসেন সুজনকে সদস্য সচিব করে উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটি ঘোষণা করেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও পাবনা জেলা বিএনপির আহ্বায়ক হাবিবুর রহমান হাবিব। ওই সময় অভিযোগ তোলা হয় দলের ত্যাগী নেতাকর্মীদের বড় একটি অংশকে বাদ রেখেই হাবিব তার পছন্দের লোকজন নিয়ে পকেট কমিটি ঘোষণা করেছেন। সেই ঘোষণার এক সপ্তাহের মধ্যে ৭ নভেম্বর পাল্টা কমিটি ঘোষণা করে বিএনপির অন্য একটি পক্ষ। এ বিষয়ে পাবনা জেলা বিএনপির আহ্বায়ক হাবিবুর রহমান হাবিব বলেন, যারা সংগঠনবিরোধী কাজ করবে তাদের বিরুদ্ধে অবশ্যই দলের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।