শশী থারুরের কণ্ঠে বঙ্গবন্ধুর অবদানের গল্প|179457|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ৯ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০
ঢাকা লিট ফেস্টের দ্বিতীয় দিন
শশী থারুরের কণ্ঠে বঙ্গবন্ধুর অবদানের গল্প
নিজস্ব প্রতিবেদক

শশী থারুরের কণ্ঠে বঙ্গবন্ধুর অবদানের গল্প

রাজধানীর বাংলা একাডেমিতে ঢাকা লিট ফেস্টের দ্বিতীয় দিনে ‘হাসিনা : অ্যা ডটার্স টেল’ সিনেমা দেখার জন্য ছিল উপচে পড়া ভিড়। গতকাল বাংলা একাডেমির আবদুল করিম সাহিত্যবিশারদ মিলনায়তনে প্রদর্শিত হয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে নির্মিত এ চলচ্চিত্রটি। এ ছাড়া শশী থারুরের কণ্ঠে বিশ্ব অঙ্গনের নানা ঘটনায় বঙ্গবন্ধুর অবদানের গল্প সবার নজর কেড়েছে। এদিন ‘নো ওয়ার্ল্ড ফর উইমেন’ সেশনটি বাংলা একাডেমির লনে অনুষ্ঠিত হয়। অন্যদিকে নাদিম জামানের উপন্যাস ‘ইন দ্য টাইম অব দ্য আদারস’ শিরোনামের সেশনে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত আমেরিকান লেখক। সঞ্চালনা করেন রিফাত মুনিম। ‘সমাজ ও সত্তা : দ্বান্দ্বিক বিরোধ’ শীর্ষক এক আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। এতে অংশ নেন কথাসাহ্যিতিক হরিশংকর জলদাস, শাহীন আক্তার, আনিসুল হক ও মাসরুর আরেফিন। ‘স্টেট অব স্টেটলেসনেস’ শীর্ষক সেশনে গর্গ চট্টোপাধ্যায়ের সঞ্চালনায় উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক তাসনিম সিদ্দিকী, ভারতীয় লেখক সম্রাট চৌধুরী ও আমেরিকান সাংবাদিক জেফ্রি গেটেলম্যান।

লিট ফেস্টের দ্বিতীয় দিনের সকালটা ছিল শিশুদের। সকালের সেশনে কসমিক টেন্ট ও নজরুল মঞ্চজুড়ে ছিল শিশুদের কলতান। কসমিক টেন্টে বিজ্ঞান বাক্সের রাতুল খানের সঙ্গে শিশুরা মেতেছিল বিজ্ঞান নিয়ে মজার সব খেলায়। ‘ফান উইথ ফিজিকস’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে রাতুল খান ৭-১০ বছর বয়সী শিশুদের সঙ্গে পদার্থবিজ্ঞানের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন। এ সময় শিশুদের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন ব্রিটিশ চিত্রকর ও লেখক ক্রুটিস জবলিং।

অনুষ্ঠিত হয় আনন্দঘন কবিতা আবৃত্তি পরিবেশনা। উপস্থিত ছিলেন কবি কামাল চৌধুরী, কবি ও লেখক কাইসার হক, ভারতীয় কবি তিশানি দোশি ও পাকিস্তানি কবি জোহাব জি খান।