রাতের ভোটের সরকার আমাদের ঘাড়ে বসেছে|181019|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১৭ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০
সেমিনারে মির্জা ফখরুল
রাতের ভোটের সরকার আমাদের ঘাড়ে বসেছে
নিজস্ব প্রতিবেদক

 রাতের ভোটের সরকার আমাদের ঘাড়ে বসেছে

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, রাতের ভোটের সরকার আমাদের ঘাড়ে চেপে বসেছে। এখন দেশপ্রেমিক জনগণের মূল কাজ হচ্ছে ঐক্যবদ্ধভাবে এই সরকারকে ক্ষমতা থেকে অপসারণ করা। রাতের ভোটে ক্ষমতায়ে এসেছে বলে সরকার কোনো কিছুই নিয়ন্ত্রণ করতে পারছে না।

গতকাল শনিবার রাজধানীর মতিঝিলে হোটেল পূর্বাণীতে অ্যাসোসিয়েশন অব ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশ আয়োজিত ‘ফেনী নদীর পানি চুক্তি : বাংলাদেশের সম্ভাব্য বিপর্যয়’ শীর্ষক সেমিনারে ফখরুল এসব

কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, রাতের ভোটের সরকার কোনো কিছুই নিয়ন্ত্রণ করতে পারছে না। তাই রাতের ভোটের ফলাফল বাতিল করে অবিলম্বে নিরপেক্ষ সরকার ও নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশনের মাধ্যমে নতুন নির্বাচন দিতে হবে। যার মাধ্যমে দেশে জনগণের প্রতিনিধিত্বশীল সরকার কায়েম হবে।

তিনি বলেন, সংবিধান অনুযায়ী অন্য কোনো দেশের সঙ্গে সরকার কোনো চুক্তি করলে তা সংসদে প্রকাশ করতে হয়। আলোচনা করতে হয়। কিন্তু ভারতের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর সম্পন্ন করা চুক্তি সংসদে তুলে ধরা হয়নি। আলোচনা তো পরের কথা।

এ সময় তিস্তার পানিবণ্টনের প্রসঙ্গ টেনে বিএনপি মহাসচিব বলেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী বলছেন, খাবার পানি চাইলে কি পানি দেব না? ভালো কথা, পানি দেবেন। কিন্তু আমাদের যে লাখ লাখ মানুষ তিস্তার অববাহিকায় নিঃস্ব হয়ে যাচ্ছে। তাদের ফসল নষ্ট হয়ে যাচ্ছে, জীবন-জীবিকা নষ্ট হচ্ছে। সে বিষয় নিয়ে আপনারা কথা বলবেন না? এক যুগেও তিস্তার এক ফোঁটা পানি আপনি আনতে পারলেন না।

ফখরুল বলেন, সমস্যা হলো আজকে এমন একটা সরকার যারা আমাদের সমস্যাগুলো নিয়ে ভারতের সঙ্গে কথা বলতে পারে না। বার্গেনিং করতে পারে না। সেই শক্তি তাদের নেই।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়াকে আটক করে রাখার কোনো বৈধতা নেই। আইনগতভাবে তিনি আটক থাকতে পারেন না। যখন টিপাইমুখ বাঁধ করার জন্য তোড়জোড় চলছিল তখন দেশনেত্রী খালেদা জিয়া সবচেয়ে বেশি সোচ্চার ছিলেন। তিনি প্রেস কনফারেন্স করেছেন। তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখেছিলেন। গণতন্ত্রের জন্য তিনি সারা জীবন লড়াই করেছেন। সেজন্যই আজকে তাকে আটক করে রাখা হয়েছে।

সৌদি আরব থেকে নারীশ্রমিকদের মরদেহ আসা নিয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যের সমালোচনাও করেন মির্জা ফখরুল।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন রুয়েটের পুরকৌশল বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. আখতার হোসেন। এ্যাবের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি প্রকৌশলী রিয়াজুল ইসলাম রিজুর সভাপতিত্বে আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেনসহ দলটির সংগঠনটির সদস্যরা।