রুনা লায়লার সুরে চার কিংবদন্তি |181131|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১৮ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০
রুনা লায়লার সুরে চার কিংবদন্তি

রুনা লায়লার সুরে চার কিংবদন্তি

গতকালই ৬৭ বছরে পা দিলেন কিংবদন্তিতুল্য শিল্পী রুনা লায়লা। বিশেষ দিনে পরিবারের সদস্য ও ভক্তরা তো তাকে অনেক শুভেচ্ছাবার্তা পাঠিয়েছেনই। কিন্তু তিনিও ভক্তদের দিয়েছেন নতুন এক উপহার। ধ্রুব মিউজিক স্টেশনের ব্যানারে প্রকাশ হয়েছে তার সুরে এবং কণ্ঠে ‘ফেরাতে পারিনি’ গানের ভিডিও। কবির বকুলের লেখা গানটির সংগীতায়োজন করেছেন রাজা কাশেফ। জীবনের বাস্তবতা, প্রাপ্তি আর অপ্রাপ্তির গল্পে প্রেক্ষাগৃহের ব্যানারে গানটির ভিডিও নির্মাণ করেছেন শাহরিয়ার পলক। মিউজিক ভিডিওতে কাজ করেছেন নিলয় আলমগীর এবং সালহা খানম নাদিয়া। আছে রুনা লায়লার উপস্থিতিও। তিনি বলেন, ‘ফেরাতে পারিনি’ গানটি মেলোডিয়াস ঘরানার, ক্লাসিক্যাল বেইজড। আমার বিশ্বাস, এই গান শ্রোতা-দর্শকের মধ্যে অন্যরকম ভালোলাগার সৃষ্টি করবে।’

বিখ্যাত এই শিল্পীর জন্মদিনে কলকাতার স্টার জলসার জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘কে আপন কে পর’-এর গতকালেল পর্বটি রুনা লায়লাকে ঘিরে। এখানেই শেষ নয়; আগামী ১৩ ডিসেম্বর সিটি ব্যাংকের প্রযোজনায় আসছে ‘রুনা লায়লা ফিচারিং লিজেন্ডস ফরএভার’ শিরোনামে পাঁচটি গানের মিউজিক ভিডিও। গানগুলো সুর করেছেন রুনা লায়লা। গেয়েছেন উপমহাদেশের বরেণ্য শিল্পী আশা ভোসলে, রাহাত ফতেহ আলী খান, হরিহরণ, আদনান সামি ও রুনা লায়লা নিজে।

রুনা লায়লা জানান, গানগুলো হবে বাংলা ও হিন্দিতে। শিল্পীদের সঙ্গে আমি ফোনে যোগাযোগ করলে সবাই এক বাক্যে রাজি হয়ে যান। পঁাঁচটি গানের সুর আমি আগেই করেছিলাম। সুরের ওপর দুটি গান মনিরুজ্জামান মনির ও তিনটা গান কবির বকুল লিখে দেন। গানগুলো খালি গলায় গেয়ে আমি শিল্পীদের কাছে পাঠিয়ে দিই। শুনে তারা পছন্দ করেন এবং ফোন করে প্রায়ই জানতে চান, কবে ভয়েস রেকর্ড করব। তাদের আগ্রহ দেখে আমার ভীষণ ভালো লাগে। একটি গান গাওয়ানোর ইচ্ছা ছিল লতা মুঙ্গেশকরকে দিয়ে। শারীরিক অসুস্থতার জন্য গানটি গাইতে না পারলেও রুনাকে অডিওবার্তা পাঠিয়েছেন লতা।

রুনা লায়লা জানিয়েছেন, ‘গত পাঁচ দশক শিল্পী হিসেবেই মানুষের ভালোবাসা পেয়ে আসছি। সুর করার ব্যাপারে আমাকে সবচেয়ে বেশি অনুপ্রাণিত করেছেন আলমগীর সাহেব। তার প্রযোজনা ও পরিচালনায় একটি সিনেমার গল্প চলচ্চিত্রের জন্যই আমার প্রথম সুর করা। গানটি লিখেছেন গাজী মাজহারুল আনোয়ার। গেয়েছেন আঁখি আলমগীর। এ গানটির জন্য আমি আর আঁখি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেতে যাচ্ছি। ধ্রুব মিউজিক স্টেশন থেকে আরও কিছু গান সুর করার প্রস্তাব পাই। ‘ফেরাতে পারিনি’ ছাড়া বাকিগুলো গেয়েছেন তানি লায়লা, আঁখি আলমগীর, হৈমন্তী রক্ষিত ও লুইপা।’