আল্লামা তাফাজ্জুল হকের জানাজায় লাখো মানুষের ঢল|191390|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ৬ জানুয়ারি, ২০২০ ১৪:১৯
আল্লামা তাফাজ্জুল হকের জানাজায় লাখো মানুষের ঢল
হবিগঞ্জ প্রতিনিধি

আল্লামা তাফাজ্জুল হকের জানাজায় লাখো মানুষের ঢল

লাখো ভক্তের চোখের জলে চিরবিদায় নিলেন দেশের অন্যতম ইসলামী চিন্তাবিদ  জমিয়তে ওলামায়ের কেন্দ্রীয় সহসভাপতি আল্লামা তাফাজ্জুল হক।

হবিগঞ্জের এই কৃতি সন্তানের জানাজায় অংশ নিতে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে ছুটে আসেন প্রায় সোয়া লাখ মুসল্লি।

সোমবার সকাল ১০টায় তার হাতে গড়া প্রিয় প্রতিষ্ঠান উমেদনগর জামিয়া ইসলামীয়া আরাবিয়া টাইটেল মাদ্রাসা ময়দানে নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

এতে অংশ নেন সিলেটের সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ কামরুল হাসান, হেফাজতে ইসলামীর কর্ণধার মাওলানা আহমেদ শফির ছেলে আসাদ মাদানী, বেফাকের সেক্রেটারি জুনায়েদ আহমদ বাবু নগরী, দেশ বরেণ্য উলামায়ে কেরামসহ অসংখ্য মুসল্লি।

রবিবার বিকেল সোয়া ৪টায় অসুস্থ হয়ে পড়েন মাওলানা তাফাজ্জুল হক। তাকে সিলেট নেওয়ার পথে মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল প্রায় ৮৪ বছর। তিনি ৫ ছেলে ও ৪ মেয়েসহ অসংখ্য ভক্ত রেখে গেছেন।

তার মৃত্যুর খবর বিভিন্ন মিডিয়ায় প্রকাশিত হলে ঢাকা সিলেটসহ দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ছুটে আসেন শেষবারের মতো এই ইসলামী চিন্তাবিদের মুখখানি দেখতে।

রবিবার জানাজায় অংশ নিতে হাজার হাজার মানুষের চাপে শহরের প্রধান ও বাইপাস সড়ক যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। কয়েক কিলোমিটার জুড়ে রাস্তাায়  যানজট দেখা দিলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে হিমশিম খেতে হয়। মুসল্লিরা পায়ে হেঁটে জানাজাস্থলে পৌঁছান। ভোরেই লোকে লোকারণ্য হয়ে পড়ে মাদ্রাসার ময়দান। ফলে মাদ্রাসার সামনে হবিগঞ্জ-নবীগঞ্জ সড়কের প্রায় দেড় কিলোমিটার রাস্তায় মুসল্লিরা জানাজায় অংশ নেন।

জানাজা নামাজের ইমামতি করেন মরহুম তাফাজ্জুল হকের বড় ছেলে মাওলানা মাসরুরুল হক। পরে মাদ্রাসা প্রাঙ্গণেই তাকে দাফন করা হয়।

উল্লেখ্য তিনি উমেদনগরের ‘বড় হুজুর’ হিসেবে সকলের কাছে পরিচিত।

১৯৩৮ সালে হবিগঞ্জ সদর উপজেলার কাটাখালি গ্রামে তিনি জন্ম গ্রহণ করেন। তার বাবা মাওলানা আব্দুন নুর ছিলেন একজন বড়  আলেম। ৫ ভাইয়ের মধ্যে তিনিই বড়। তিনি  ইসলামের মৌলিক শিক্ষা  গ্রহণ করেন চট্টগ্রামের হাটহাজারী মাদ্রাসায়। বাংলাদেশের প্রখ্যাত পীর ও আলেমে দ্বীন চট্টগ্রাম হাটহাজারী মাদ্রাসার পরিচালক শায়খুল হাদীস আল্লামা আহমদ শফি আল্লামা তাফাজ্জুল হকের শিক্ষক।