টিকাতেও প্রথম হতে চান অর্থমন্ত্রী|272175|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২২ জানুয়ারি, ২০২১ ০০:০০
টিকাতেও প্রথম হতে চান অর্থমন্ত্রী
নিজস্ব প্রতিবেদক

টিকাতেও প্রথম হতে চান অর্থমন্ত্রী

বিশ্বসেরা অর্থমন্ত্রীর স্বীকৃতি পাওয়া আ হ ম মুস্তফা কামাল করোনার টিকা গ্রহণেও দেশের প্রথম হতে চান। করোনার টিকা গ্রহণের আগ্রহ প্রকাশ করে তিনি বলেছেন, ‘সম্ভব হলে আমি সবার আগেই নেব। আমার তো ভ্যাকসিন দরকার, আমার বয়স হয়েছে।’ গতকাল বৃহস্পতিবার ক্রয়সংক্রান্ত কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ আগ্রহ প্রকাশ করেন অর্থমন্ত্রী।

গতকালের সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির সভায় স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের আওতায় রাষ্ট্রীয় জরুরি প্রয়োজনে সরাসরি ক্রয় পদ্ধতিতে তিন কোটি ডোজ ভ্যাকসিন কেনার অনুমোদন দেওয়া হয়। ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে এসব ভ্যাকসিন কিনতে ১ হাজার ২৭৩ কোটি ৫৫ লাখ ব্যয় প্রস্তাব অনুমোদন পায়।

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের সভাপতিত্বে কমিটির সভা শেষে সাংবাদিকরা প্রতি ডোজ ভ্যাকসিনের দাম জানতে চাইলে অর্থমন্ত্রী এ ব্যাপারে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে যোগাযোগের পরামর্শ দেন।

বৈঠক শেষে ভার্চুয়াল প্লাটফর্মের আরেক সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘করোনার ভ্যাকসিন অবশ্যই নেব। সম্ভব হলে আমি সবার আগেই নেব। আমার তো ভ্যাকসিন দরকার, আমার বয়স হয়েছে। আপনার (সাংবাদিক) লাগবে না। আমি বয়স্ক, আমার লাগবে।’

সরকার যে ভ্যাকসিন আনছে সেটাই নেবেন জানিয়ে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘সব তো একই ভ্যাকসিন। একই কোম্পানির ভ্যাকসিন। ম্যানুফ্যাকচারার যদি বলে একই ভ্যাকসিন তাহলে একই ভ্যাকসিন। এ পর্যন্ত আমরা দ্বিতীয় সোর্স থেকে ভ্যাকসিন আনছি বলে তথ্য পাইনি।’

সভা শেষে জানানো হয়, ‘আজ (গতকাল) সভায় কমিটির অনুমোদনের জন্য ৯টি প্রস্তাব উত্থাপন করা হয়। এরমধ্যে শিল্প মন্ত্রণালয়ের তিনটি, নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের দুটি, খাদ্য মন্ত্রণালয়ের একটি, সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের একটি, গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের একটি এবং স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের একটি প্রস্তাবনা ছিল।’

এর মধ্যে ৮টি প্রস্তাবনা অনুমোদন করে কমিটিযাতে মোট ব্যয় হবে ২ হাজার ৫৯ কোটি ৪১ লাখ ৭৭ হাজার ৩৬০ টাকা। মোট অর্থায়নের মধ্যে সরকারি তহবিল থেকে ব্যয় হবে ১ হাজার ৮৭০ কোটি ৮১ লাখ ৮১ হাজার ১৭৪ টাকা এবং দেশীয় ব্যাংক হতে ঋণ ১৮৮ কোটি ৫৯ লাখ ৯৬ হাজার ১৮৬ টাকা।