সামনেও আন্তর্জাতিক কাজ করব|315541|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০
সামনেও আন্তর্জাতিক কাজ করব
মাসিদ রণ

সামনেও আন্তর্জাতিক কাজ করব

এইচবিও এশিয়ার ওয়েব সিরিজ ইনভিজিবল স্টোরিজে অভিনয় করে আলোচনায় আসেন অভিনেতা সুদীপ বিশ্বাস দীপ। একই সিরিজ তাকে ফের আলোচনায় এনেছে। তার সঙ্গে কথা বলেছেন মাসিদ রণ

পূজা ভাটের প্রশংসা...

৩৫ সপ্তাহ আগে ইনস্টাগ্রামে আমার পোস্ট করা ‘ইনভিজিবল স্টোরিজ’-এর ২ মিনিট ১৩ সেকেন্ডের একটি ভিডিওতে এসে গত সোমবার নিজের ভালো লাগার কথা জানান বলিউডের প্রখ্যাত অভিনেত্রী ও নির্মাতা পূজা ভাট। আমার অভিনয় দেখে পূজা ভাট লিখেছেন, ‘মাত্রই শোটি দেখলাম এবং বলতে চাই, আপনি এতে খুবই অসাধারণ কাজ করেছেন। অভিনন্দন এবং আপনার সাফল্য কামনা করছি।’ প্রথমে কনফিউজড হয়ে পড়ি। এরপর দেখি, বলিউড সুপারস্টার আলিয়া ভাট থেকে শুরু করে আরও কয়েকজন আমাকে ইনস্টাগ্রামে ফলো করেন। 

অনুভূতি...

পূজা ভাটের মতো ব্যক্তিত্বের কাছ থেকে এ ধরনের মন্তব্য পেয়ে সত্যি অবাক হয়ে গেছি। আমিও তাকে ধন্যবাদ জানিয়ে লিখেছি, ‘চমৎকার এই কথাগুলোর জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। আমাদের শো খুঁজে বের করে দেখার জন্য আমি খুবই আনন্দিত।’ আমার কাজটি দেড় বছর ধরে অনেক প্রশংসা পাচ্ছে। বিভিন্ন জায়গায় পুরস্কারও পেয়েছে। অস্ট্রেলিয়া, মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, সিঙ্গাপুরসহ অনেক জায়গা থেকে অনেকে প্রশংসা করেছেন। এই সিরিজের কারণে অনেক ভারতীয়ও আমাকে নিয়ে কথা বলেছেন। এ আনন্দ ভাষায় প্রকাশ করার মতো নয়। অভিনয় শিল্পীর বাইরে পূজা ভাট পরিচালক এবং প্রযোজকও। কাজটি তাকে গভীরভাবে স্পর্শ না করলে তিনি আমাকে খুঁজে বের করতেন না! আমি তো বাংলাদেশে অত জনপ্রিয়ও নই যে, একবার সার্চ দিলেই খুঁজে পাওয়া যাবে। তিনি আমাকে খুঁজতে সেই চেষ্টা করেছেন, মন্তব্য করেছেনএটা অনেক বড় প্রাপ্তি।

নতুন কাজ...

সত্যি বলতে আমি এখন কোনো কাজই করছি না। আমার জন্য কাজ করাটা এখন একটু শক্ত হয়ে গেছে। এইচবিওর মতো প্ল্যাটফর্মে এত ভালো একটি কাজ করার পর সব ধরনের কাজ করতে পারি না। তাই আমার সবসাময়িক অনেকেই যে ধরনের কাজে নিয়মিত ব্যস্ত সেগুলো আমি করছি না। আবার যে কাজগুলো আমার প্রত্যাশার সমতুল্য সেগুলোতে ব্যাটে বলে মিলছে না। তবে শিগগিরই দেশীয় কাজের একটা ভালো খবর দিতে পারব। এছাড়া আমার একাধিক ইন্টারন্যাশনাল কাজের কথা অনেক দূর এগিয়েছে। আমার কাস্টিং এজেন্সি সিঙ্গাপুরে। পূজা ভাটের বিষয়টি তাদেরও নজরে এসেছে। তারা গতকাল অনেকক্ষণ আমার সঙ্গে কথা বললেন। জানতে চাইলেন, আমাদের দেশে কেন ভালো কাজ করতে পারছি না? আর সেখানকার কাজগুলো শুরু হতে একটু দেরি হবে। কারণ সেখানে কভিড পরিস্থিতি আমাদের চেয়ে খারাপ।

চলচ্চিত্রে...

মঞ্চ নাটকের দল প্রাচ্যনাটে কাজের পর টিভি নাটকে বেশকিছু কাজ করেছি। প্রসূন রহমানের ‘সুতপার ঠিকানা’ ও রায়হান রাফির ‘দহন’ সিনেমাতেও কাজ করেছি।  এখন মুক্তির অপেক্ষায় আছে ‘মিশন এক্সট্রিম’ সিরিজের ছবি দুটি। হৃদি হকের ‘১৯৭১ সেই সব দিনগুলো’তে আমি আর পরীমণি ফাইনালি কাজ করিনি। ইতিমধ্যে ছবিটি শেষও হয়ে গেছে। তাই এ নিয়ে আর কথা বলতে চাই না।