সাফে ভালো সম্ভাবনা দেখছেন জামাল|315589|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০
সাফে ভালো সম্ভাবনা দেখছেন জামাল
ক্রীড়া প্রতিবেদক

সাফে ভালো সম্ভাবনা দেখছেন জামাল

সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের সেমিফাইনাল গত চারটি আসর ধরে মরীচিকা বাংলাদেশের কাছে। এবার ফরমেশন বদলে যাওয়ায় সেমিফাইনাল নেই। পাঁচ দেশ রাউন্ড রবিন লিগ পদ্ধতিতে খেলবে। সেরা দুটি দল খেলবে ফাইনালে। বাকি দলগুলোর সঙ্গে সামর্থ্যরে তারতম্যে ফাইনালের সম্ভাবনা আরও কমে যাচ্ছে বাংলাদেশের সামনে। তার ওপর জাতীয় দলের পারফরম্যান্স বহুদিন ধরেই নিম্নগামী। তবুও আসন্ন সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে ভালো করার সুযোগ দেখছেন জাতীয় দলের অধিনায়ক জামাল ভুঁইয়া। তার বিশ্বাস, এবার বাংলাদেশ ফাইনালে খেলবে!

২০১৩ সালে জাতীয় দলের হয়ে ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন ডেনমার্ক প্রবাসী জামাল। এরপর থেকে ধীরে ধীরে দলের মাঝমাঠের আস্থায় রূপ নেন। একটা সময় দলের নেতৃত্বও আসে তার কাঁধে। যদিও গত এক বছরে জামালের পারফরম্যান্স মোটেই আশা জাগানিয়া নয়। ক্যারিয়ার শুরুর পর ভারত, মালদ্বীপের মতো র‌্যাংকিংয়ে অনেক ধাপ এগিয়ে থাকা দলের বিপক্ষে খেলেছেন জামাল। অথচ একবারও জয়ের স্বাদ পাননি। অথচ ১ অক্টোবর থেকে মালদ্বীপে শুরু হতে যাওয়া সাফে এই প্রতিপক্ষদের হারিয়ে সেরা দুইয়ে জায়গা করে নেওয়ার কথা বলছেন তিনি, ‘ফাইনাল খেলতে হলে আমাদের চার ম্যাচ থেকে কমপক্ষে ১০ পয়েন্ট লাগবে। সেরাটা করতে হলে আমাদের ম্যাচ বাই ম্যাচ খেলতে হবে। আমি মনে করি, এখানে আমাদের ভালো সুযোগ আছে। তবে ভারত ও মালদ্বীপকে ক্যারিয়ারে কখনো হারাতে পারিনি এটা যেমন সত্যি, তবে তাদের সঙ্গে কিন্তু ড্র আছে আমাদের।’

সাফে ভালো করতে হলে চাই ভালোমানের একজন স্ট্রাইকার। প্রতিপক্ষের গোলের দরজা খুলতে যে হবে পারদর্শী। আর এই ঘাটতি পোষাতে জামাল মনে করেন সদ্য বাংলাদেশের নাগরিকত্ব পাওয়া এলিটা কিংসলে হতে পারেন সেরা পছন্দ, ‘সামনে বল ধরে খেলতে পারে, এমন ফুটবলার দরকার। আমাদের সেই বক্সের খেলোয়াড়টি নেই। কিংসলেকে পেলে অবশ্যই আমাদের দলের জন্য ভালো হয়।’

এর মধ্যেই সাফের অন্য দলগুলো জোর প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছে। মালদ্বীপ, শ্রীলঙ্কা ও নেপাল আবাসিক ক্যাম্প করছে কাতারে। আর বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন এখনো ক্যাম্প শুরুর দিনক্ষণ চূড়ান্ত করেনি, যা ভাবাচ্ছে জামালকে ‘আমি কোচকে বলেছিলাম যত দ্রুত সম্ভব ক্যাম্প শুরু করতে। ট্রেনিংয়ে না থাকলে আমাদের ফিটনেস কমে যাবে। অন্তত যাদের খেলা শেষ হয়ে গেছে তাদের নিয়ে ট্রেনিং করা উচিত। কিন্তু কোচ বলেছেন এ ব্যাপারে বাফুফে সিদ্ধান্ত নেবে।’ কিরগিজস্তানে অনুষ্ঠিত ট্রাইনেশন্স সিরিজ থেকে খালি হাতে ফেরার ব্যাখ্যা জামাল করেছেন নিজের মতো করে, ‘কিরগিজস্তানে আমরা নতুন ফরমেশনে খেলেছি। ৩-৪-৩ ফরমেশনে খেলিয়ে কোচ দেখতে চেয়েছিলেন আমরা কতটা পারি। তবে তাতে কাজ হয়নি, আমরা পারিনি। তাই আগের ফরমেশনে ফিরে যেতে হবে।’