ক্ষমতাসংক্রান্ত বিধান বাস্তবায়নের নির্দেশ হাইকোর্টের|315640|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০
উপজেলা চেয়ারম্যান
ক্ষমতাসংক্রান্ত বিধান বাস্তবায়নের নির্দেশ হাইকোর্টের
নিজস্ব প্রতিবেদক

ক্ষমতাসংক্রান্ত বিধান বাস্তবায়নের নির্দেশ হাইকোর্টের

উপজেলা পর্যায়ের দাপ্তরিক কার্যক্রমসংক্রান্ত সব কাগজপত্র ও নথি উপজেলা চেয়ারম্যানের কাছে উপস্থাপনসহ এ-সংক্রান্ত বিধি ও প্রজ্ঞাপন বাস্তবায়নের নির্দেশ দিয়েছে উচ্চ আদালত। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের (ইউএনও) প্রতি নির্দেশনা দিয়ে জারি করা প্রজ্ঞাপন অনুসরণের নির্দেশনাসহ হাইকোর্টের এ আদেশের বিষয়ে আলাদা আরেকটি প্রজ্ঞাপন জারি করতে মন্ত্রিপরিষদ সচিব ও স্থানীয় সরকার সচিবের প্রতি নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

এ বিষয়ে একটি সম্পূরক আবেদনের ওপর শুনানি নিয়ে গতকাল মঙ্গলবার বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লার হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেয়। আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মনজিল মোরসেদ ও হাসান এম এস আজিম। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল নওরোজ মো. রাসেল চৌধুরী।

আবেদনকারী আইনজীবীরা জানান, হাইকোর্টের এ আদেশের ফলে উপজেলা পরিষদের বিভিন্ন দপ্তরের কার্যক্রম উপজেলা চেয়ারম্যানের অনুমোদন ও বিধি অনুসারে করতে যে বিধান, সেটি প্রতিপালন করতে হবে ইউএনওদের।

উপজেলা পরিষদ আইনের ৩৩ ধারা চ্যালেঞ্জ করে গত বছরের ডিসেম্বরে উপজেলা পরিষদ অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষে হাইকোর্টে একটি রিট আবেদন করা হয়। প্রাথমিক শুনানি নিয়ে হাইকোর্ট রুল দেয়। রুলে ইউএনওদের সাচিবিক দায়িত্ব পালনের বিধানসংক্রান্ত উপজেলা পরিষদ আইনের ৩৩ ধারা কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না, সেটি জানতে চায় হাইকোর্ট।

আবেদনের পক্ষে শুনানিকারী আইনজীবী হাসান এম এস আজিম দেশ রূপান্তরকে বলেন, ২০১০ সালে এক প্রজ্ঞাপনে ১৭টি বিভাগের কার্যাবলী উপজেলা পরিষদে ন্যস্ত করা হয়। এরপর উপজেলা কার্যক্রম বিধিমালা, ২০১০-এর সংশোধনীতে বলা হয়, ইউএনওরা যখন কোনো কাজ করবেন, তখন সেগুলোতে উপজেলা চেয়ারম্যানের অনুমোদন নিতে হবে। কিন্তু ইউএনওরা এটি করছিলেন না। তারা নিজেরাই সব করছিলেন। যখন রুল জারি হয় তখনো প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে এটি জানানো হলেও ইউএনওরা সেটি মানছিলেন না।

তিনি আরও বলেন, ‘এর পরিপ্রেক্ষিতে আমরা গত এপ্রিলে হাইকোর্টে একটি সম্পূরক আবেদন করি। আমাদের আর্জি ছিল সংশ্লিষ্ট বিধান অনুযায়ী ইউএনওরা যাতে উপজেলা চেয়ারম্যানের অনুমোদন নিয়ে কাজ করেন। আদালত অবিলম্বে এ বিষয়ে বিজ্ঞপ্তি জারি করতে এবং হাইকোর্টের এই আদেশের বিষয়ে আরেকটি বিজ্ঞপ্তি জারির নির্দেশ দিয়েছেন।’