পটুয়াখালীতে মাধ্যমিক বিদ্যালয় ভবন নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগ|317156|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ২০:৩৭
পটুয়াখালীতে মাধ্যমিক বিদ্যালয় ভবন নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগ
পটুয়াখালী প্রতিনিধি

পটুয়াখালীতে মাধ্যমিক বিদ্যালয় ভবন নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগ

পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় ধানখালী এমইউ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণাধীন ভবনের নির্মাণকাজে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে। শিডিউলের নির্দেশিত উপকরণ ব্যবহার না করে নিম্নমানের উপকরণ ব্যবহারের অভিযোগ তুলেছে সংশ্লিষ্ট শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কার্য নির্বাহী পরিষদ। এ নিয়ে বিতণ্ডা হলে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দেয়ার হুমকি প্রদান করে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের ব্যক্তিরা।

জানা যায়, বিদ্যালয়ের ঝুঁকিপূর্ণ পুরোনো ভবন ভেঙে তদস্থলে নতুন একটি পাঁচ তালা ভবন নির্মাণের উদ্যোগ নেয় পটুয়াখালী শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর। ভবনের নির্মাণ ব্যয় ধরা হয় ৩ কোটি ৭০ লাখ টাকা। কার্যাদেশ পেয়ে ২০২০ সালের শেষের দিকে এর নির্মাণ শুরু করে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান মুন্সি এন্ড ব্রাদার্স।

বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সদস্য ফারুক তালুকদার, সাবেক ইউপি সদস্য জহিরুল ইসলাম লালু গাজী, প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি আ. জব্বার, চম্পাপুর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য জলিল ফকির জানান, ছাদ ঢালাই কাজে অত্যন্ত নিম্নমানের উপকরণ ব্যবহার করা হয়েছে। ল্যাবরেটরি টেস্ট করলে প্রকৃত সত্যতা বেড়িয়ে আসবে।

বিদ্যালয়ের সভাপতি রেজাউল করিম স্বপন বলেন, প্রতিষ্ঠানের সভাপতি হলেও ভবন নির্মাণকাজের বিষয়ে আমাকে অবহিত করা হয়নি। নির্মাণকাজের মান নিয়ে ঠিকাদারের সঙ্গে বাগ্‌বিতণ্ডা হয়েছে।

ধানখালী এমইউ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ইরফান বলেন, প্রতিষ্ঠানের অন্য শিক্ষকদের কাজ তদারকির দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। কাজের মান বেশ সন্তোষজনক।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের কর্ণধার আল-আমিন বলেন, সকল অভিযোগ অসত্য। শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের প্রকৌশলী এবং বিদ্যালয়ের তদারকি কমিটির সদস্যদের উপস্থিতিতে ছাদ ঢালাইয়ের কাজ সম্পন্ন হয়েছে।

শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী হাদিউজ্জামান খান বলেন, বিষয়টি জানার পর বিদ্যালয়ের সভাপতি, প্রধান শিক্ষককে ডেকে একটি তদারকি কমিটি করে দেওয়া হয়েছে। সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে শিডিউল অনুযায়ী কাজ করার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।