কর্মীকে ২২৭ কেজি খুচরা পয়সায় বেতন দিয়ে বিপাকে মালিক!|338584|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ১১ জানুয়ারি, ২০২২ ১৬:২৫
কর্মীকে ২২৭ কেজি খুচরা পয়সায় বেতন দিয়ে বিপাকে মালিক!
অনলাইন ডেস্ক

কর্মীকে ২২৭ কেজি খুচরা পয়সায় বেতন দিয়ে বিপাকে মালিক!

কর্মীর বেতন ৯১৫ মার্কিন ডলার যা বাংলাদেশি মুদ্রায় ৭৮ হাজার ৫৯০ টাকা। তাকে বেতনের পুরোটাই কয়েনে দেন মালিক যার ওজন ২৭৭ কেজি। আর এই টাকা গুনতে লেগেছে সাত ঘণ্টা।

আজকের এই ডিজিটাল লেনদেনের যুগে এমনভাবে বেতন পাওয়ার কথা কেউ ভাবতে পারেন? কেন ঘটল এমনটা?

আনন্দবাজার জানায়, অবিশ্বাস্য হলেও এক কর্মীর সঙ্গে এমন কাজই করেছেন একটি সংস্থার মালিক। কাজ নিয়ে মালিকের সঙ্গে বনিবনা না হওয়ায় কর্মীকে ‘শায়েস্তা’ করতে এ কাজ করেন তিনি।

‘মিরর’-এ প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী ঘটনাটি আমেরিকার জর্জিয়ার। অ্যান্ড্রিয়াজ ফ্লেটেন নামে এক মেকানিকের সঙ্গে তার সংস্থার মালিকের সম্পর্ক এতটাই তিক্ত পর্যায়ে পৌঁছেছিল যে অ্যান্ড্রিয়াজ কাজ ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন।

তিনি মালিককে তার বেতনের পুরো টাকা মিটিয়ে দিতে বলেন। মালিক রাজিও হয়ে যান। কিন্তু অ্যান্ড্রিয়াজকে শায়েস্তা করার জন্য বেতনের পুরোটাই কয়েনে দেন। বস্তায় ভরে সেই টাকা দেওয়া হয় অ্যান্ড্রিয়াজকে।

ওই টাকা গুনতে সাত ঘণ্টা সময় লেগেছে জানিয়ে অ্যান্ড্রিয়াজ বলেন, শুধু তাই নয়, তার বেতনের পুরো টাকাটাও দেননি মালিক।

বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করেন অ্যান্ড্রিয়াজ। মুহূর্তেই তা ভাইরাল হয়ে যায়। এমনকি আমেরিকার শ্রম দপ্তরে গিয়ে ঠেকে বিষয়টি। শ্রম দপ্তর বিষয়টি নিয়ে আদালতে যায়।

এরপরই মাইলস ওয়াকার নামে ওই মালিকের বিরুদ্ধে প্রশাসনকে পদক্ষেপ করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তার বিরুদ্ধে কর্মীকে হেনস্তা, শ্রম আইন ভঙ্গসহ একাধিক মামলা রুজু করা হয়েছে।