ফেসবুকে ভাইরাল জয়িতার ‘লাফ’|341343|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৫ জানুয়ারি, ২০২২ ১৯:০৭
ফেসবুকে ভাইরাল জয়িতার ‘লাফ’
অনলাইন ডেস্ক

ফেসবুকে ভাইরাল জয়িতার ‘লাফ’

ছবি: সংগৃহীত

জয়িতা আফরিন একজন ফ্রিল্যান্স ফটোগ্রাফার। থাকেন ঢাকার ধানমন্ডিতে। মঙ্গলবার সকালে তিনি ফটোগ্রাফি করতে মডেল মোবাশ্বিরা কামাল ইরাকে নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসিতে যান। ফটোগ্রাফির আলাদা একটা অর্থ তৈরি করার চিন্তা করছিলেন তিনি। এমন সময় চোখে পড়ে রাজু ভাস্কর্যের পাশে চলমান বিভিন্ন আন্দোলনের প্লাকার্ড সাঁটানো। ব্যস, ক্লিক করেন পরিকল্পনা করে। তার সেই ফটোগ্রাফি মুহূর্তে ভাইরাল হয়েছে ফেসবুকে।

মঙ্গলবার বিকেল ৪টার দিকে আপলোড দেয়া ছবিগুলো অসংখ্য মানুষ শেয়ার দিচ্ছেন। পোস্টের নিচে সবাই প্রশংসাসূচক মন্তব্য করছেন।

জয়িতা আফরিন ঢাকা বেসড একজন ফটোগ্রাফার। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকার রাজু ভাস্কর্যের সামনে তোলা ছবিগুলোতে শূন্যে ভেসে থাকা অবস্থায় এক নারী মডেলকে দেখা যায়। ওই নারী মডেলের নাম মোবাশ্বিরা কামাল ইরা।

এই ছবিগুলো শেয়ার দিয়ে শারমিন শর্মী নামে একজন লিখেন, ‘সত্যি অপূর্ব। ছবিগুলোর আলাদা একটা মিনিং তৈরি হয়েছে।

তার ওই ছবিগুলো বেশিরভাগ শেয়ার হচ্ছে, কাজী নজরুলের বিদ্রোহী কবিতার লাইন দিয়ে।

এ বিষয়ে জয়িতা আফরিনের অনুভূতি জানতে দেশ রূপান্তরের পক্ষ থেকে যোগাযোগ করা হয়। তিনি জানান, তিনি একজন ফ্রিল্যান্স ফটোগ্রাফার। ঢাকার ধানমন্ডিতে থাকেন।

ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া ছবিগুলোর প্রসঙ্গে তিনি জানান, তিনি টিএসসিতে সকালে ছবি তুলতে গিয়েছিলেন। তারপর রাজু ভাস্কর্যের ওখানে ছবি তুলতে গেলে, দেখেন, শাবিপ্রবির আন্দোলনের সঙ্গে সংহতি জানিয়ে অনেকগুলো প্লাকার্ড সাঁটানো। এর পরেই তিনি পরিকল্পনা করে, ওই প্লাকার্ডের সামনে ছবি তুলে আন্দোলনের একটা আলাদা ভাষা তৈরি করতে চেয়েছেন।

ফেসবুকে অসংখ্য শেয়ার নিয়ে অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে তিনি বলেন, হয়তো সত্যি একটা আলাদা অর্থ তৈরি হয়েছে।