সালাম দিতে দেরি হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীকে মারধরের অভিযোগ |362377|Desh Rupantor
logo
আপডেট : ২৫ মে, ২০২২ ১৩:৩৪
সালাম দিতে দেরি হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীকে মারধরের অভিযোগ
অনলাইন ডেস্ক

সালাম দিতে দেরি হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীকে মারধরের অভিযোগ

ছাত্রলীগ কর্মীকে সালাম দিতে দেরি হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাস্টারদা’ সূর্যসেন হলের ২৪৯ নম্বর কক্ষে এ ঘটনা ঘটে।

এ নিয়ে বুধবার হল প্রাধ্যক্ষের কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ভুক্তভোগী ছাত্র।

ভুক্তভোগী সাজ্জাদুল হক নৃবিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষে (২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষ) অধ্যয়নরত। তাকে মারধরে অভিযুক্ত মানিকুর রহমান ওরফে মানিক রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের চতুর্থ বর্ষের (২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষ) ছাত্র। তিনি হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সিয়াম রহমানের অনুসারী হিসেবে পরিচিত।

সাজ্জাদুল জানান, হলের কক্ষে বসে অনলাইনে টিউশনের ক্লাস নিচ্ছিলেন। এ সময় ছাত্রলীগের কয়েক কর্মী তার কক্ষে যান। ক্লাস চলছিল বলে তাদের সালাম-করমর্দন করতে দেরি হয় সাজ্জাদুলের। এই অপরাধে তাকে থাপ্পড়, কিল-ঘুষি ও লাথি মারেন মানিক।

বুধবার সকালে সূর্যসেন হলের প্রাধ্যক্ষ মো. মকবুল হোসেন ভূঁইয়া বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন বলে জানান সাজ্জাদুল হক।

এ দিকে অভিযোগ অস্বাীকার না করে সূর্যসেন হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সিয়াম রহমান বলেছেন, সাজ্জাদুলকে মারধরের ঘটনায় অভিযুক্ত মানিকুর রহমান ‘দুঃখপ্রকাশ’ করেছেন।