logo
আপডেট : ৬ অক্টোবর, ২০২২ ১৫:০৫
দমন-নিপীড়ন চালিয়ে সরকার গদি ধরে রাখতে পারবে না: প্রিন্স
নিজস্ব প্রতিবেদক

দমন-নিপীড়ন চালিয়ে সরকার গদি ধরে রাখতে পারবে না: প্রিন্স

বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স বলেছেন, ‘হত্যা, গুম করে দমন-নিপীড়ন চালিয়ে সরকার গদি ধরে রাখতে পারবে না। চলমান আন্দোলনকে তীব্র, ব্যাপক ও সর্বাত্মক করে গণ-অভূত্থানের মাধ্যমে সরকারের পতন ঘটিয়ে সকল হত্যা, গুম, নির্যাতনের বিচার করা হবে।

তিনি আজ বৃহস্পতিবার ময়মনসিংহ মহানগর বিএনপির শোক মিছিল পূর্ব সমাবেশে বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

কর্মসূচি চলাকালে বিভিন্ন সময়ে পুলিশের সঙ্গে বিএনপির সংঘর্ষে নিহত শহীদ নূরে আলম, আবদুর রহিম, মো. শাওন, শহীদুল ইসলাম শাওন ও আবদুল আলীমের স্মরণে দেশব্যাপী মহানগরীতে শোক মিছিল কর্মসূচি পালন করছে বিএনপি।

ময়মনসিংহ মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যাপক শফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে সমাবেশ সঞ্চালনা করেন সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক আবু ওয়াহাব আকন্দ।

আজ দুপুরে ময়মনসিংহ নগরীর নতুন বাজার সংলগ্ন হরিকিশোর রোডে বিএনপি কার্যালয়ের সামনে থেকে শোক মিছিল বের হয়ে মিছিলটি বিদ্যাময়ী স্কুলের সামনে এসে শেষ হয়। শোক মিছিলে যোগ দেয়া নেতাকর্মীরা কালো ব্যাজ ধারণ করে কালো পতাকা বহন করেন।

সমাবেশে এমরান সালেহ প্রিন্স বলেন, চলমান আন্দোলনে জনগণের ব্যাপক অংশগ্রহণে সরকার দিশেহারা হয়ে হত্য, নির্যাতন, হামলা, মামলা করে দমন করতে চায়, তারা বেসামাল আচরণ করছে।

এসব করে পাকিস্তানীরাও রেহাই পায় নাই, কোনো স্বৈরশাসক ক্ষমতায় টিকতে পারে নাই, আওয়ামী ফ্যাসিবাদও টিকতে পারবে না। জনগণের কথা বলতে গিয়ে যারা শাসকগোষ্ঠীর গুলিতে নিহত হয়েছেন, জাতি চিরদিন তাদের স্মরণ করবে।

তিনি বলেন, শহীদের লাশ, রক্ত ছুয়ে শপথ নিয়েছি, ফ্যাসিবাদী আওয়ামী লীগ সরকারের পতন ঘটিয়ে জনগণের সরকার কায়েম করব, গণতন্ত্র ও ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনব, দেশের মালিকানা জনগণের কাছে ফিরিয়ে দেবো ও দুর্ণীতি, দু:শাসন ও দুর্ভোগের চির অবসান ঘটাবো।

সমাবেশে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ অবৈধ ক্ষমতার দম্ভে কাউকে কাউকে মহামানবে পরিণত করতে যেয়ে মহাদানবে পরিণত করছে। ফেসবুকে স্বাধীন মত প্রকাশ করাতে শিশু সন্তানের মাকে গ্রেফতার করেছে, এসব করে কারোর সম্মান রক্ষা করা যায় না, বরং চরম ফ্যাসিবাদের বহি:প্রকাশ ঘটে।

মিথ্যা আত্মঅহামিকা, অহঙ্কার সরকারকে মহা-দানবীয় সরকারে পরিণত করেছে।

শোক মিছিলে এমরান সালেহ প্রিন্স ছাড়াও ময়মনসিংহ মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যাপক শফিকুল ইসলাম, যুগ্ম আহ্বায়ক আবু ওয়াহাব আকন্দ, অধ্যাপক শেখ আমজাদ আলী ,কাজী রানা,শাহ্ শিবির আহমেদ বুলু,ফারজানা রহমান হোসনা, এড.এম এ হান্নান খান, শামীম আজাদ, মাহবুবুল আলম, মহানগর যুবদলের সভাপতি মোজাম্মেল হক টুটু, সাধারণ সম্পাদক জোবায়ের হোসেন শাকিল, স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক আতাহার হোসেন তালুকদার রিপন, ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক তানভীর আহমেদ রবিন, মহিলা দলের সভানেত্রী খালেদা আতিক, ফারিয়া তাসনিম তিথি, শ্রমিক দলের সভাপতি শহীদুল ইসলাম দুলান, সাধারণ সম্পাদক আবদুল মান্নান, তাঁতী দলের আহ্বায়ক জাহাঙ্গীর আলম, সদস্যসচিব সাইদুল বাশার বিপ্লবসহ বিপুলসংখ্যক নেতাকর্মী অংশ নেন।