রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ৮ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

আজ হোক বা কাল তালেবানকে স্বীকৃতি দিতে হবে যুক্তরাষ্ট্রের

আপডেট : ০৩ অক্টোবর ২০২১, ০৪:০৩ পিএম

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, মার্কিন সরকারকে ‘আজ হোক বা কাল’ তালেবানকে স্বীকৃতি দিতে হবে, যারা এখন আফগানিস্তান শাসন করছে।

তুরস্কের টিআরটি ওয়ার্ল্ডের সঙ্গে এক টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে ইমরান খান শনিবার বলেন, গত ১৫ আগস্ট আফগানিস্তান তালেবানদের দখল চলে যাওয়ার পর যুক্তরাষ্ট্র ‘প্রচণ্ড আঘাত এবং বিভ্রান্তির’ মধ্যে রয়েছে।

ইমরান খান আরও বলেন যে, মার্কিন জনগণ বর্তমানে একটি ‘বলির পাঠা’ খুঁজছে এবং মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনকে ‘অন্যায়ভাবে টার্গেট’ করছে।

সমালোচকরা বলেছেন, আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারে বাইডেনের সিদ্ধান্তের পরই পশ্চিম সমর্থিত আফগান সরকার ভেঙে পড়ে। তীব্র চাপ সত্ত্বেও, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দীর্ঘতম যুদ্ধের অবসান ঘটিয়ে সৈন্য প্রত্যাহারের ৩১ আগস্টের সময়সীমায় অনড় ছিলেন বাইডেন।

মার্কিন সেনা প্রত্যাহার মূলত তালেবানদের সঙ্গে ২০২০ সালে স্বাক্ষরিত একটি চুক্তির অংশ হিসেবেই ঘটেছে। কাতারের রাজধানী দোহায় স্বাক্ষরিত চুক্তিতে তালেবানকেও বলা হয়েছিল যে, তারা যেন যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের বিরুদ্ধে হামলা চালানো আল-কায়েদার মতো সশস্ত্র গোষ্ঠীকে আফগান মাটি ব্যবহার করতে না দেয়।

কিন্তু তালেবানরা নাটকীয় ভাবে আফগানিস্তানের ক্ষমতা দখল করে নিলে যুক্তরাষ্ট্র ও আন্তর্জাতিক আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলো দেশটির সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করে। আফগান কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রায় ৯ বিলিয়ন ডলারেরও বেশি সম্পদ যুক্তরাষ্ট্র আটকে দেওয়ায় তালেবানরা ব্যাপক অর্থ সংকটে পড়েছে।

ইমরান খান আবারও আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে আফগান সরকারকে সহায়তা প্রদানের আহ্বান জানান। আফগান সরকার বেশিরভাগই বিদেশী সাহায্যের উপর নির্ভরশীল।

ইমরান বলেন, যদি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় আফগান জনগণকে সাহায্য করতে এগিয়ে না আসে, তাহলে মানবিক সংকট দেখা দেবে।

ইমরান খান আরও বলেন, পাকিস্তান যদি একা তালেবানকে স্বীকৃতি দেয় তাহলে তাতে কোনো প্রভাব পড়বে না। যুক্তরাষ্ট্র, ইউরোপ, চীন এবং রাশিয়ার প্রতি তালেবানকে স্বীকৃতি দেওয়ার আহবান জানান তিনি।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত