বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

খাশোগি হত্যায় জড়িতদের মেরে ফেলা হচ্ছে: এরদোয়ান

আপডেট : ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৯:৪৩ পিএম

সাংবাদিক জামাল খাশোগি হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িতদের কয়েকজনকে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়িপ এরদোয়ান।

রোববার দেশটির জাতীয় সম্প্রচারমাধ্যম টিআরটিতে এক সাক্ষাৎকারে তিনি এমনটা বলেন বলে জানায় ডেইলি সাবাহ। এতে এ ঘটনার আবারও সুষ্ঠু ও পরিপূর্ণ তদন্তের দাবি জানান এরদোয়ান।

তুর্কি প্রেসিডেন্ট বলেন, “হিট স্কোয়াডের ২২ জনকেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছিল সৌদি আরব। কিন্তু প্রাপ্ত তথ্য মতে আমরা ধারণা করছি, এদের কয়েকজন আর বেঁচে নেই। সড়ক দুর্ঘটনার মতো ঘটনার শিকার হয়েছেন তারা।”

এরদোয়ানের মতে, সড়ক দুর্ঘটনার মতো ঘটনা দিয়ে এসব মৃত্যুকে আড়াল করছে রিয়াদ। তিনি জানান, খাশোগি হত্যাকাণ্ডের স্পষ্ট ও সুষ্ঠু তদন্ত নিয়ে অনেক পিছিয়ে আছে সৌদি কর্তৃপক্ষ।

প্রসঙ্গত, গত অক্টোবরে রিয়াদে সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যান হিটলিস্টের একজন। তবে গাড়িচাপা দিয়ে তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেছে তুরস্কের সংবাদমাধ্যম।

তুরস্কের প্রাথমিক তদন্তে দেখা যায়, এ ঘটনায় ২২ জনের একটি হিট স্কোয়াড অংশগ্রহণ করে। এর মধ্যে ১৫ জনই দুটি বিমানে করে রিয়াদ থেকে ইস্তাম্বুলে আসে। এরদোয়ানের মতে, সৌদি রাজপরিবারের শীর্ষ মহল থেকে চার মাসে আগে এ হত্যাকাণ্ডের নির্দেশ আসে।

সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের কড়া সমালোচক হিসেবে পরিচিত ছিলেন জামাল খাশোগি। গত ২ অক্টোবর তুরস্কের ইস্তাম্বুলে সৌদি কনস্যুলেটে প্রবেশের পর নিখোঁজ হন ওয়াশিংটন পোস্টের এই কলামিস্ট।

শুরুতে অভিযোগ অস্বীকার করে সৌদি। তবে সংবাদমাধ্যমে তুর্কি গোয়েন্দাদের একের পর এক ‘তথ্য ফাঁসে’র মুখে ১৯ অক্টোবর খাশোগি হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছেন বলে স্বীকার করে সৌদি কর্তৃপক্ষ। যদিও এর সঙ্গে সৌদি যুবরাজের কোনো সম্পৃক্ততা নেই বলে তারা দাবি করে।

এদিকে এ হত্যাকাণ্ড নিয়ে তদন্তের সকল নথিপত্র সৌদি আরবসহ আরও কয়েকটি দেশকে দেয় তুরস্ক। এর সঙ্গে জড়িতদের আঙ্কারার হাতে তুলে দিতে সৌদি আরবের কাছে অনুরোধ জানানো হলেও তাতে সাড়া দেয়নি রিয়াদ।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত