মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১০ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

টেকনাফে এক ভোরেই ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৪ জন নিহত

আপডেট : ০১ মার্চ ২০১৯, ১০:৪৯ এএম

কক্সবাজারের টেকনাফে পুলিশ ও বিজিবির সঙ্গে পৃথক ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় চার ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। এ সময় তাদের কাছ থেকে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা ও কয়েকটি অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে বলে দাবি করেছে পুলিশ ও বিজিবি।

শুক্রবার ভোরে টেকনাফ উপজেলার হোয়াইক্যং ও সাবরাংয়ে কথিত বন্দুকযুদ্ধের এসব ঘটনা ঘটে।

পুলিশের সঙ্গ বন্দুকযুদ্ধে নিহত দুজন হলেন- টেকনাফ পৌরসভার চৌধুরীপাড়ার আবদুল জলিলের ছেলে নজির আহমদ (৩০) এবং মো. জাকারিয়ার ছেলে গিয়াস উদ্দিন।

এখন পর্যন্ত বিজিবির সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত দুজনের নাম-পরিচয় জানা যায়নি।

টেকনাফ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ জানান, টেকনাফের হোয়াইক্যংয়ের নয়াপাড়ার বটতলী এলাকায় অভিযানে গেলে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে ইয়াবা ব্যবসায়ীরা। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে নজির ও গিয়াসের লাশ উদ্ধার করা হয়।

তিনি দাবি করেন, ঘটনাস্থল থেকে ছয় হাজার পিস ইয়াবা ও দুইটি দেশীয় পিস্তল উদ্ধার করা হয়।

এছাড়া প্রায় একই সময় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিবির সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত দুজনের পরিচয় শনাক্ত করার চেষ্টা চলছে বলে জানান ওসি।

টেকনাফ ২ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল আছাদুদ-জামান চৌধুরী জানান, টেকনাফ উপজেলার সাবরাংয়ের মগপাড়া এলাকায় অভিযানে গেলে বিজিবিকে লক্ষ্য করে গুলি চালানো। এ সময় আত্মরক্ষার্থে বিজিবিও পাল্টা গুলি চালালে দুই ইয়াবা ব্যবসায়ী নিহত হয়।

তিনি বলেন, নিহতদের পরিচয় এখনো শনাক্ত করা যায়নি। এসময় ঘটনাস্থল থেকে এক লাখ পিস ইয়াবা ও একটি দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

ওসি জানান, নিহত চারজনের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানোর প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে।

   
সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত