মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

কেন্দ্রীয় ব্যাংক এক দিনেই ধার দিল ১৩ হাজার কোটি টাকা

আপডেট : ১৭ মে ২০২৪, ১২:৩৪ এএম

প্রকট তারল্য সংকট চলছে দেশের ব্যাংকগুলোতে। সংকট মেটাতে কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে ধার নেওয়া অব্যাহত রেখেছে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলো। গত বুধবার নিলামে ৩৬টি ব্যাংক ও একটি ব্যাংকবহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান (এনবিএফআই) রেপো ও তারল্য সুবিধার মাধ্যমে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কাছ থেকে ১৩ হাজার ৮৫ কোটি টাকা ধার নিয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংক জানিয়েছে, গত বুধবার বাণিজ্যিক ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য বাংলাদেশ ব্যাংক রেপো এবং অ্যাসিউরড লিকুইডিটি সাপোর্ট ফ্যাসিলিটি (এএলএসএফ) এর নিলাম অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত নিলামের মাধ্যমে এক দিন ও সাত দিন মেয়াদি রেপো সুবিধার আওতায় ১৯টি ব্যাংক ও এনবিএফআই ৫ হাজার ৯২৫ কোটি ৪৩ লাখ টাকা ঋণ নিয়েছে। এছাড়া এক দিন মেয়াদি এএলএসএফের আওতায় ১৮টি পিডি ব্যাংক মোট ৭ হাজার ১৫৯ কোটি ৯৪ লাখ টাকার ঋণ পেয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে। এক দিন ও সাত দিন মেয়াদি রেপো এবং এএলএসএফের সুদের হার ছিল যথাক্রমে ৮ দশমিক ৫, ৮ দশমিক ৬ ও ৮ দশমিক ৫ শতাংশ।

ব্যাংক কর্মকর্তারা বলছেন, উচ্চ মূল্যস্ফীতি, বৈদেশিক মুদ্রা সংকট, সরকারি ট্রেজারি বিলের ক্রমবর্ধমান সুদের হার ও নীতি হার বৃদ্ধির কারণে সামগ্রিক ব্যাংকিং খাতে তারল্য সংকট তৈরি হয়েছে। কোনো কোনো ব্যাংক এখন কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে তারল্য সহায়তা নিয়ে ট্রেজারি বিলে বিনিয়োগ করছে। কারণ ট্রেজারি বিলের সুদহার ১১ শতাংশ ছাড়িয়েছে।

এদিকে বাংলাদেশ ব্যাংকের কর্মকর্তারা বলছেন, ব্যাংকিং খাতে তারল্যের সংকটের মধ্যে ব্যাংকগুলো গত কয়েক মাস ধরে কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে তারল্য সহায়তা পাচ্ছে। আগামী জুলাই থেকে রেপোর মাধ্যমে তারল্য সহায়তা প্রতিদিনের পরিবর্তে সাপ্তাহিক হবে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত