বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

তরুণরা আমাকে মায়ের চরিত্রে নিতে পারেনি

আপডেট : ০৯ জুলাই ২০২৪, ০৬:৪৬ এএম

গত রোজার ঈদে মাহিয়া মাহিকে দেখা গিয়েছিল রাজকুমার চলচ্চিত্রে। সেখানে শাকিবের মায়ের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। এরপর অনেকদিন ধরেই পর্দায় অনুপস্থিত থাকলেও সামাজিক মাধ্যমে সরব। কবে ফিরবেন, কী করছেন এসব প্রশ্ন নিয়ে এই নায়িকার মুখোমুখি হয়েছিলেন মাহতাব হোসেন

চলচ্চিত্রে ফিরছেন কবে?

আসলে কামব্যাক করার মতো চিত্রনাট্য এখনো হাতে পাইনি। অনেকগুলো চিত্রনাট্য হাতে এসেছে। এসব দেখেছি। কিন্তু অভিনয় করব- এমন ইচ্ছে হয়নি। আমি কামব্যাক করতে চাই নায়িকা হিসেবে, অভিনেত্রী হিসেবে। ফলে এখন অপেক্ষা করছি একটা ভালো পরিচালক ও একটা ভালো চিত্রনাট্যের জন্য।

চলচ্চিত্র নিয়ে আসলে আপনার পরিকল্পনাটা কী?

আমি ব্যস্ত অভিনেত্রী হতে চাই না। একের পর এক কাজ করছি, এমন আমার দরকার নেই। ভারতে যেমন পুষ্পা, কেজিএফ, কাল্কি, এর জন্য একজন আল্লু অর্জুন, একজন প্রভাস যেমন বছরের পর বছর অপেক্ষা করে আমি তেমনই অপেক্ষা করতে চাই। মানুষ যেন আমাকে ব্যস্ত অভিনেত্রী তকমা না দেয়, যেন তারা আমার অভিনয়ে মুগ্ধ হয়, তৃপ্ত হয়। শুধু কাজের সংখ্যা বাড়ানোটা আমার কাছে গুরুত্ব নয়। আমার অগ্নি, পোড়ামন-এর মতো বছরে যদি একটা ভালো সিনেমা করতে পারি, সেটাই আমার জন্য অনেক বড় প্রাপ্তি হবে।

ওটিটিতে আপনি কাজ করেছিলেন, ফের দেখা যাবে?

হ্যাঁ। অভিনয়ের একটা গুরুত্বপূর্ণ জায়গা ওটিটি। এখানে অভিনয় করার সুযোগ রয়েছে বলেই করেছি। এই প্ল্যাটফর্মে কাজ করব। আমার হাতে এমন কয়েকটি প্রস্তাব রয়েছে। তবে এখনো চূড়ান্ত হয়নি। কিন্তু হতে পারে।

রাজকুমার ছবিতে মায়ের ভূমিকায় দেখা গেল, কেমন প্রতিক্রিয়া পেলেন? 

ছবিটিতে মায়ের চরিত্রটি ছিল আমার নিজস্ব এক্সপেরিমেন্ট। সেই এক্সপেরিমেন্ট খুবই ভালোভাবে সফল হয়েছে। এখানে একজন মা ও তার সন্তানের ভালোবাসার গভীর চিত্রটি ফুটিয়ে তোলা চ্যালেঞ্জ ছিল। সেটা করেছি। কেননা সবাই আমার অভিনয়ের অনেক প্রশংসা করেছেন। কোনো নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া পাইনি। শুধু যারা তরুণ, অল্পবয়সী যুবক তারা আমাকে মায়ের চরিত্রে নিতে পারেনি এমন অনেকেই জানিয়েছে। কারণ নায়িকাকে তারা প্রেমিকা ভাবতেই পছন্দ করে।

শাকিব খানের সঙ্গে অভিনয় করছেন এমন একটি কথা শোনা গিয়েছিল...

মোটেও এমন কোনো কথা হয়নি। এমনকি পরিচালক হিমেল আশরাফ কিংবা ও ওই প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকেও কোনো ছবিতে কাজের বিষয়ে কোনো ধরনের আলোচনা হয়নি।

বাংলাদেশে শাকিব খানের বিকল্প আছে বলে মনে হয়?

না নেই। শাকিব খানের যে অভিনয় সত্তাটা রয়েছে কিংবা তার যে স্টারডম রয়েছে- এটা গড গিফটেড। এখানে শুধু পরিশ্রম নয়, আরও অনেক কিছুই রয়েছে। অনেকেই খুব চেষ্টা করে হয়তো তার কাছাকাছি যেতে পারবে কিন্তু একজন শাকিব খান হতে পারবে না।

ব্যক্তিগত জীবন কেমন যাচ্ছে?

খুবই ভালো যাচ্ছে আলহামদুলিল্লাহ। আমার যদি কখনো মন খারাপ হয়, তখন আমি নিজেই বলি তোমার ফারিশ আছে তারপরেও তোমার মন খারাপ? তোমাকে দুটো চড় মারা উচিত। আমার ছেলে আমার সব ডিপ্রেশনের ওষুধ। সে আছে বলেই আমি আনন্দে আছি। মাঝে মধ্যে ওর বাবার সঙ্গে দেখা করে। বাকি সময়টা মা-ছেলের আনন্দের সময়। কথা বলতে পারে না। কিন্তু চেষ্টা করে। সারাক্ষণ আমাকে মাতিয়ে রাখে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত