রোববার, ১৬ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

নেত্রকোনায় জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে বাড়ি ঘিরে পুলিশ

আপডেট : ০৯ জুন ২০২৪, ০২:২৯ এএম

নেত্রকোনার সদর উপজেলার কাইলাটি ইউনিয়নের ভাসাপাড়া এলাকায় জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে একটি বাড়ি ঘিরে রেখেছে পুলিশ। গতকাল শনিবার দুপুর থেকে সীমানা প্রাচীরঘেরা দ্বিতল বাড়িটির চারপাশ থেকে ঘেরাও করে রাখে পুলিশ দলটি। ওই বাড়িতে জঙ্গি প্রশিক্ষণের জন্য ব্যবহার করা অস্ত্র ও বোমা থাকতে পারে বলে তাদের ধারণা। এরই মধ্যে কিছু সরঞ্জামাদি উদ্ধারের দাবি করেছে পুলিশ।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানায়, ভাসাপাড়া এলাকায় ওই বাড়ি আটপাড়া উপজেলা নোয়াপাড়া গ্রামের আবদুল মান্নান নামের এক ব্যক্তি প্রায় ২০ বছর আগে নির্মাণ করেন। অবসরপ্রাপ্ত অধ্যাপক মান্নান ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (ডুয়েট) শিক্ষক ছিলেন। তিনি ওই ভবনে একটি কলেজ স্থাপন করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু তা হয়ে ওঠেনি। দুই বছর আগে বাড়িটি তিনি এক ব্যক্তির কাছে ভাড়া দেন।

স্থানীয়রা আরও জানান, ভাড়া দেওয়ার পর থেকে ভাড়াটিয়ারা বাড়ির সীমানা প্রাচীর আরও উঁচু করেন। এরপর নারকেল গাছ, আম গাছ ধরে সীমানা প্রাচীরে প্রায় ২০টির মতো সিসিটিভি ক্যামেরা বসানো হয়। বাড়িটির ভেতরে দুটি পুকুর রয়েছে। ওই বাড়িতে স্থানীয় কাউকে ঢুকতে দেওয়া হয় না।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে গতকাল নেত্রকোনা মডেল থানার ওসি আবুল কালামের নেতৃত্বে অভিযান চালায় এক দল পুলিশ। এ সময় বাড়িটির নিচতলার একটি কক্ষ থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, ১৭ রাউন্ড গুলি, প্রচুর পরিমাণ খেলনার পিস্তল, দুটি ওয়াকিটকি, একটি হ্যান্ডকাফ, এক বস্তা জিহাদি বইসহ বিভিন্ন জিনিস পাওয়া যায়। পুলিশের ধারণা, বাড়িটিতে বোমা জাতীয় বিস্ফোরক দ্রব্য থাকতে পারে।

বিকেল পৌনে ৬টার দিকে নেত্রকোনা পুলিশ সুপার মো. ফয়েজ আহমদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে জানান, পুলিশের বিশেষায়িত টিম কাউন্টার টেররিজম ইউনিটকে খবর দেওয়া হয়েছে। ধারণা বাড়িটি একটি জঙ্গি আস্তানা। এখানে জঙ্গিদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হতো। বোমা বিশেষজ্ঞ টিম ঘটনাস্থলে পৌঁছলে ভেতরে প্রবেশ করে বিস্তারিত বলা যাবে।

অ্যান্টি টেররিজম ইউনিট ময়মনসিংহ বিভাগের অতিরিক্ত মহাপুলিশ পরিদর্শক আসাদুল্লাহ চৌধুরী জানান, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। কাউন্টার ট্যুরিজম ইউনিটের বিশেষজ্ঞ দল, সোয়াট ইউনিটের বিশেষজ্ঞ দলকে খবর দেওয়া হয়েছে। তারা আসলে ভেতরে কী আছে, তা বিস্তারিত বলা যাবে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত