মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান

আপডেট : ০১ নভেম্বর ২০২০, ০৭:১০ পিএম

দীর্ঘ ৭ মাসেরও অধিক সময় বন্ধ থাকার পর রবিবার থেকে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জের লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান পর্যটকদের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে। সকাল থেকেই দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে পর্যটক আসছেন লাউয়াছড়ায়। শুরুতে পর্যটক উপস্থিতি কম থাকলেও লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যানের ভেতরের দোকান বন্ধ রয়েছে।

সেই সঙ্গে লাউয়াছড়ায় আসা দর্শনার্থীদের করোনার বিধি-নিষেধ মানতে সকল ধরনের সহায়তায় ব্যস্ত থাকতে দেখা যায় বন-প্রহরীদের। শুধু লাউয়াছড়াই নয়, পর্যটকেরা সেখান থেকে যাচ্ছেন মাধবপুর লেক, বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান স্মৃতিসৌধ, চা-বাগানসহ কমলগঞ্জ ও শ্রীমঙ্গলের বিভিন্ন পর্যটন কেন্দ্রগুলোতে।

রবিবার সকাল ১০টা থেকে একজন দুজন করে লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যানে পর্যটকদের আগমন ঘটে। উদ্যানের প্রবেশ টিকিট কাউন্টার, ফটক এলাকার কর্মচারীরা মুখে মাস্ক পরে দায়িত্ব পালন করেন। করোনা প্রাদুর্ভাবের কারণে গত ১৯ মার্চ বন্ধ করে দেওয়া হয় লাউয়াছড়া উদ্যানসহ জেলার সকল পর্যটনকেন্দ্র। তবে স্বাস্থ্যবিধি মানাসহ নানা শর্তে রবিবার থেকে খুলে দেওয়া হয়েছে লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান।

লাউয়াছড়ার টিকিট কালেক্টর শাহিন মিয়া দেশ রূপান্তরকে বলেন, প্রথম দিন থাকায় আজ প্রায় ১৮০ জনের মতো পর্যটক ঘুরতে এসেছেন লাউয়াছড়ায়। আমরা স্বাস্থ্যবিধি মেনেই পর্যটকদের টিকিট দিচ্ছি। মাস্কবিহীন কোন পর্যটককে কাউন্টার থেকে প্রবেশের কোন টিকিট দেওয়া হয়নি।

লাউয়াছড়া ইকো ট্যুর-গাইড সভাপতি অজানা আহমেদ কামরান দেশ রূপান্তরকে বলেন, দীর্ঘ ৭ মাস যাবৎ লাউয়াছড়া উদ্যান বন্ধ থাকায় আমরা বেকার জীবন কাটিয়েছেন। এখন লাউয়াছড়া উদ্যান খুলে দেওয়ায় কর্মস্থলে ফিরে অনেক আনন্দিত।

বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের সিলেট বিভাগীয় বন-কর্মকর্তা (ডিএফও) মো. রেজাউল করিম চৌধুরী দেশ রূপান্তরকে বলেন, শর্ত সাপেক্ষে পর্যটকদের জন্য লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান সাময়িকভাবে খুলে দেওয়া হয়েছে। সরকার ঘোষিত করোনা ভাইরাসের বিধি-নিষেধ ও শর্ত মেনেই পর্যটকদের প্রবেশের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বন-বিভাগের পক্ষ থেকে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত