মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ১০ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

কুমিল্লায় ট্রেনের বগি পড়ে ঘরহারা দম্পতি পেলেন নতুন ঘর

আপডেট : ০১ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:৫৬ পিএম

কুমিল্লা নাঙ্গলকোটে বিজয় এক্সপ্রেসের লাইনচ্যুত হওয়া বগি পড়ে ঘরহারা বৃদ্ধ চাঁন মিয়া ও মনোয়ারা বেগম দম্পতিকে নতুন ঘর করে দিয়েছে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইসমাইল হোসেন। নতুন ঘর পেয়ে আনন্দিত ওই দম্পতি। সোমবার (১ এপ্রিল) বৃদ্ধ চাঁন মিয়া ও মনোয়ারা বেগমকে টিন সেডের একটি নতুন ঘর বুঝিয়ে দেওয়া হয়। 

জানা যায়, গত রবিবার (১৭ মার্চ) দুপুরে উপজেলার ঢালুয়া ইউপির তেজের বাজার গ্রামের চাঁন মিয়া ও তার স্ত্রী মনোয়ারা নিজ ঘরের পাশে বসে কাজ করছেন। এমন সময় হঠাৎ বিকট শব্দে ট্রেনের একটি বগি ছিটকে এসে ঘরের ওপর পড়ে ঘর ভেঙে যায়। এই খবর প্রকাশের পর উপজেলা প্রশাসন তাদের নতুন ঘর করে দেওয়ার ঘোষণা দেয়। সেই অনুযায়ী সোমবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইসমাইল হোসেন একটি টিন সেডের ঘর বুঝিয়ে দেয়া ওই দম্পতিকে।

এ বিষয়ে মনোয়ারা বেগম বলেন, আমি নতুন ঘর পেয়েছি। এতে তিনি অনেক আনন্দিত। আল্লাহ যেন নির্বাহী অফিসার সহ উপজেলা প্রশাসনের অফিসারকে ভালো রাখে। আমার কোন তৌফিক ছিল না আবার নতুন করে ঘর তৈরি করতে। এমনিতে সংসার চালাই হিমশিম খাই। অনেক কষ্ট করে করি। মাঝে মধ্যে উপবাসও করি। 

এ বিষয়ে নাঙ্গলকোট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ইসমাইল হোসেন দেশ রূপান্তরকে বলেন, বিজয় এক্সপ্রেস ট্রেনের বগি লাইনচ্যুত হয়ে চাঁন মিয়া ও মনোয়ারা দম্পতির বসত ঘর ভেঙে যায়। তাৎক্ষণিক তাদের সঙ্গে কথা বলে একটি ঘর নির্মাণের আশ্বাস দেই। পাশাপাশি আর্থিক প্রণোদনাও দেওয়ার কথা বলি। সেই অনুযায়ী একটি ঘর নির্মাণ করে দিয়েছি। পাশাপাশি তাদের আর্থিক প্রণোদনাসহ ১০টি হাঁস, ১০টি মুরগি এবং দুটি ছাগল কিনে দেওয়া হয়।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত