শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

দুর্নীতিবাজের প্রথমেই চাকরি চলে যাবে, তার সব সম্পদ নিলামে বিক্রি করে দেওয়া হবে

আপডেট : ০৯ জুন ২০২৪, ১১:৫৬ এএম

দুর্নীতি ও দুর্নীতিবাজদের ঠেকানো প্রসঙ্গে বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ ও সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, যখনই নিশ্চিত হওয়া, বোঝা যায়, ওই সরকারি কর্মচারী দুর্নীতিবাজ, প্রথমেই তার চাকরি চলে যাবে। আর দুর্নীতিবাজকে জেল-জরিমানা নয়, তার অবৈধ উপায়ে অর্জিত সব সম্পদ নিলামে বিক্রি করে দেওয়া। এতে দুর্নীতি নিরুৎসাহিত হবে।

দেশ রূপান্তরের কাছে একান্ত সাক্ষাৎকারে ড. মোমেন এ কথা বলেছেন। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন দেশ রূপান্তরের বিশেষ প্রতিনিধি পাভেল হায়দার চৌধুরী।

দুর্নীতি ও দুর্নীতিবাজদের ঠেকাতে আপনার পরামর্শ কী?— এমন প্রশ্নের উত্তরে ড. মোমেন বলেন, আমি মনে করি, দুর্নীতিবাজ যারা তাদের শুধু দুর্নীতি কমিশনে (দুদক) মামলা দিয়ে নিয়ন্ত্রণ করা যায় না। মামলায় দুদক কর্মচারী-কর্মকর্তারাও একটা সুযোগ-সুবিধা পান। যখনই নিশ্চিত হওয়া, বোঝা যায়, ওই সরকারি কর্মচারী দুর্নীতিবাজ, প্রথমেই তার চাকরি চলে যাবে। এই পদক্ষেপ নিতে হবে। কারণ, চাকরির কারণেই তিনি দুর্নীতিবাজ। দুর্নীতিবাজকে জেলে দেওয়াও আমি পছন্দ করি না। জেলে দিলে ৫/৭ বছর জেল খেটে তিনি বেরিয়ে যাবেন। জরিমানা করা হলে জরিমানা দিয়ে দেবেন। আমি মনে করি, এগুলোর কোনো কিছু না করে ওই দুর্নীতিবাজ সরকারি কর্মচারীর অবৈধ উপায়ে অর্জিত সব সম্পদ নিলামে বিক্রি করে দেওয়া। এতে দুর্নীতি নিরুৎসাহিত হবে।

বিস্তারিত সাক্ষাৎকারটি পড়ুন এখানে

 

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত