রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

সাবেক এডিসি কামরুল হাসানের অবৈধ সম্পদের অনুসন্ধান শুরু

আপডেট : ০৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:৪১ পিএম

চট্টগ্রাম নগর পুলিশের (প্রসিকিউশন শাখা) সাবেক  অতিরিক্ত উপকমিশনার কামরুল হাসানের অবৈধ সম্পদের অনুসন্ধান শুরু করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। 

নগর পুলিশের এই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগ চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের প্রসিকিউশন শাখায় দায়িত্ব পালনকালে ঘুষ গ্রহণ ও চাঁদাবাজির মাধ্যমে বিপুল সম্পদের মালিক বনে গেছেন।

জানা গেছে, অনুসন্ধান কর্মকর্তা দুদক, সমন্বিত জেলা কার্যালয় চট্টগ্রাম ১ এর সহকারী পরিচালক মো. এমরান হোসেন  এই পুলিশ কর্মকর্তার ২০১৩-২০১৪ কর বর্ষের আয়কর নথিসহ যাবতীয় কাগজপত্র সররাহের জন্য চট্টগ্রাম কর অঞ্চল ৩ (সার্কেল ১৯) উপ কর কমিশনারের কাছে চিঠি দিয়েছেন।

চিঠিতে পুলিশ কর্মকর্তা কামরুল হাসানের ঠিকানায় লেখা আছে-পিতা- মোহাম্মদ গোলাম কবীর, বাসা/ হোল্ডিং-২৪৫৬, গ্রাম- বাচা মিয়া রোড, পশ্চিম নাসিরাবাদ, পাহাড়তলী, চট্টগ্রাম। 

সিএমপির সাবেক অতিরিক্ত উপকমিশনার কামরুল হাসানের বিরুদ্ধে অবৈধ সম্পদের অর্জনের অভিযোগ অনুসন্ধান শুরুর বিষয়ে আজ বুধবার সন্ধ্যায় জানতে চাইলে কোন প্রকার মন্তব্য করতে রাজি হননি দুদক কর্মকর্তা মো. এমরান হোসেন৷ তবে এই সংক্রান্তে চট্টগ্রামের উপ কর কমিশনারের কাছে দেওয়া তার চিঠির একটি কপি দেশ রুপান্তরের কাছে এসেছে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত