বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

১৭০ টাকা নিয়ে দ্বন্দ্বে হামলা, নারী আহত

আপডেট : ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৮:৫৩ পিএম

নেত্রকোণার কলমাকান্দায় ১৭০ টাকার জন্য ঘরে হামলা, ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগ উঠেছে। এতে তারাবানু (৪২) নামের এক নারী আহত হয়েছেন। আহত নারীকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। শনিবার রাতে উলুকান্দা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। তারাবানু উপজেলার নাজিরপুর ইউনিয়নের উলুকান্দা গ্রামের মো. রুপচানের স্ত্রী।

এ নিয়ে রবিবার আহত তারাবানুর স্বামী রুপচান বাদী হয়ে রুবেল মিয়া (৩৫), রাসেল মিয়া (৩২), ইদ্রিস মিয়া (৪৫), জাহাঙ্গীর (২৫), সাদ্দাম মিয়া (২৩), আকবর আলীসহ (৩৮) ১২ জনের নাম উল্লেখ করে কলমাকান্দা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, রুপচানের ছেলে উজ্জল মিয়া প্রতিবেশী রুবেল মিয়ার দোকান থেকে বাকী বাবদ ১৭০ টাকার বাজার করেন। কিন্তু দোকানদার উজ্জ্বলের কাছে ২০০ টাকা দাবি করেন। পরে ওই টাকা পরিশোধের সময় তর্ক-বির্তকের একপর্যায়ে রুবেলসহ তার লোকজন উজ্জল মিয়াকে মারধর করেন। এ নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে বিরোধ চলছিল। গত শনিবার রাত ৮টার দিকে উজ্জলের বসতঘরে হামলা-ভাঙচুর ও লুটপাট করে রুবেলসহ তার পক্ষের লোকজন। এর প্রতিবাদ করলে উজ্জলের মা তারাবানুকে মারধর করা হয়। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করেন।

এ বিষয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য ইউসুফ আলী বলেন, রুপচানের বাড়িতে রুবেলের লোকজন হামলা করছে, এমন খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। পরে সেখান থেকে আহত তারাবানুকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়। ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক।

জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক জয়ত্রী দেবনাথ বলেন, তারাবানুর শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। বর্তমানে তিনি হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসাধীন আছেন।

এ বিষয়ে জানতে রুবেল মিয়া মুঠোফোন কল করলে তা বন্ধ পাওয়া যায়। তবে তার মামা আকবর আলী বলেন, ঘটনাটি সম্পূর্ণ মিথ্যা ও সাজানো।

কলমাকান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ লুৎফুল হক বলেন, রুপচান বাদী হয়ে থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করেছেন। অভিযোগটি তদন্ত করতে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত