সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

নিজেদের নিয়ম নিজেরাই ভাঙল কেন্দ্রীয় ব্যাংক!

আপডেট : ২৯ মে ২০২৪, ১২:৫৪ এএম

কোনো ব্যাংকের পরিচালক, ব্যবস্থাপনা পরিচালকের চাকরি অব্যাহতির কমপক্ষে পাঁচ বছর একই ব্যাংকে উপদেষ্টা বা পরামর্শক নিযুক্ত করা যাবে না বলে নীতিমালা জারি করেছিল কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এবার কেন্দ্রীয় ব্যাংক নিজের নীতিমালা নিজেই ভঙ্গ করার তথ্য পাওয়া গেছে।

সম্প্রতি একটি বেসরকারি ব্যাংকের এমডিকে অবসরের অল্প কিছুদিনের মাথায় আবারও একই ব্যাংকের উপদেষ্টা হিসেবে অনুমোদন দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, একটা নীতিমালা করার পর যখন সেই নীতিমালা বাস্তবায়ন না হয়, তখন এর নেতিবাচক প্রভাব বিভিন্ন জায়গায় পড়ে।

জানা গেছে, নীতিমালা উপেক্ষা করে আইএফআইসি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মাদ শাহ আলম সরোয়ারের মেয়াদ শেষ হওয়ার কয়েক দিনের মাথায় আবারও তাকে একই ব্যাংকের উপদেষ্টা হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রীয় ব্যাংক বলছে, বিশেষ বিবেচনায় তাকে নিয়োগ দেওয়ার অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মেজবাউল হক দেশ রূপান্তরকে বলেন, ‘তাদের কিছু সংস্কারমূলক কার্যক্রম (রিফর্ম এজেন্ডা) আছে। এজন্য তারা আমাদের কাছে আবেদন করেছে। কেন্দ্রীয় ব্যাংক বিশেষ বিবেচনায় তাকে উপদেষ্টা হিসেবে নিয়োগ দেওয়ার অনুমতি দিয়েছে।’

ব্যাংকাররা বলছেন, এভাবে নিয়োগ দেওয়া হলে ব্যাংকিং খাতে এর নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি বেসরকারি ব্যাংকেরও এমডি দেশ রূপান্তরকে বলেন, কোনো কর্মকর্তা যখন দীর্ঘদিন ধরে এক জায়গায় থাকেন, সেখানে স্বাভাবিকভাবেই একটা প্রভাব পড়ে। যেখানে লাইট থাকবে, সেখানে মোমবাতির আলো কাজ করবে না।

তিনি বলেন, ‘এ ছাড়া ব্যাংক সম্পর্কে সাধারণ মানুষের ইতিবাচক বা নেতিবাচক কোন প্রভাব পড়ে, সেটাও চিন্তা করা উচিত।’

২০২১ সালের ২১ মে ব্যাংকের পরিচালক, চুক্তিভিত্তিক উপদেষ্টা ও পরামর্শক নিযুক্তির বিধিবিধান প্রসঙ্গে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। সেখানে বলা হয়েছে, ব্যাংক-কোম্পানির পরিচালনা ও ব্যবস্থাপনায় নিরপেক্ষতা, পেশাগত মান ও সুশাসন নিশ্চিত করার লক্ষ্যে ব্যাংক-কোম্পানির সঙ্গে অতীত, বর্তমান বা ভবিষ্যৎ স্বার্থসংশ্লিষ্ট ব্যক্তি-স্বতন্ত্র পরিচালক নিয়োগের যোগ্য হবেন না। আইন অনুযায়ী ব্যাংক-কোম্পানির সাবেক পরিচালক বা ব্যবস্থাপনা পরিচালক বা অন্য কোনো কর্মকর্তা নিয়মিত বা চুক্তিভিত্তিক ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদে স্বতন্ত্র পরিচালক হিসেবে নিযুক্ত হতে পারেন না।

নীতিমালায় আরও বলা হয়, ব্যাংক-কোম্পানির সাবেক পরিচালক, ব্যবস্থাপনা পরিচালক বা প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা বা প্রধান নির্বাহীর নিচের অব্যবহিত দুই স্তর পর্যন্ত কর্মকর্তা অবসর বা অব্যাহতি বা চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ার পর পাঁচ বছর অতিক্রান্ত না হওয়া পর্যন্ত একই ব্যাংকের উপদেষ্টা বা পরামর্শক হিসেবে নিযুক্ত হতে পারবেন না।

বিষয়টি ব্যাংক খাতে কী ধরনের বার্তা দেবে এমন প্রশ্নের জবাবে বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. সালেহউদ্দিন আহমেদ বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংক নিয়ন্ত্রক সংস্থা হিসেবে তাদের নিজেদের গুরুত্ব নিজেরাই নষ্ট করছে। তারা সার্কুলারদের আবার অল্প সময়ের মধ্যে তা পরিবর্তন করে। আবার নিজেদের সার্কুলার নিজেরাই মানছে না। এটা খুবই দুঃখজনক। স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান হিসেবে বাংলাদেশ ব্যাংকের যথেষ্ট ক্ষমতা রয়েছে। এই ক্ষমতা ব্যবহারের জন্য দরকার সৎ, যোগ্য ও সাহসী নেতৃত্ব। আর্থিক খাতের অবস্থার পরিবর্তন করতে হলে সরকারকে এদিকে অবশ্যই নজর দিতে হবে।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত