রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ৮ বৈশাখ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

অনিয়ম দূর করতে সব ব্যাংকে বিশেষ নিরীক্ষা : অর্থমন্ত্রী

আপডেট : ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১:১৯ পিএম

ব্যাংক খাতে অনিয়ম বের করতে ও এর সঙ্গে জড়িতদের শাস্তি দিতে সব ব্যাংকে বিশেষ নিরীক্ষা করা হবে। এই ধরনের নিরীক্ষার মাধ্যমে অনিয়ম চিহ্নিত করে ইচ্ছাকৃত খেলাপিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। গতকাল বুধবার রাজধানীতে রূপালী ব্যাংকের বার্ষিক ব্যবসায়িক সম্মেলনে এ কথা বলেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

রূপালী ব্যাংকের বার্ষিক ব্যবসায়িক সম্মেলন-২০১৯ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন আ হ ম মুস্তফা কামাল। রূপালী ব্যাংকের চেয়ারম্যান মনজুর হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির। অনুষ্ঠানে আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, ব্যাংক খাতের অনিয়ম বের করতে প্রতিটি ব্যাংকে বিশেষ নিরীক্ষা করতে হবে। আমাদের জানতে হবে কেন ব্যাংক খাতে অনিয়ম হচ্ছে। এই অনিয়মের সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করতে হবে। তবে এ নিয়ে ব্যংকারদের ভয়ের কোনো কারণ নেই। প্রকৃত দোষীরাই শাস্তি পাবে।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ব্যাংক খাতের অনিয়ম দূর করতে তিনটি নিরীক্ষা প্রতিষ্ঠান দিয়ে প্রতিটি ব্যাংকে নিরীক্ষা চালানো হবে। প্রকৃত সত্য ও ব্যাংক খাতে খেলাপি ঋণ বাড়ার কারণ জানাই বিশেষ নিরীক্ষার প্রধান উদ্দেশ্য।

আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, বাংলাদেশ ২০৪১ সালে বিশ্বের সেরা ২০টি অর্থনৈতিক দেশের কাতারে উন্নীত হবে। তখন আমরা জি-২০ দেশের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হব ও জি-২০ দেশের সম্মেলনে আমরা অংশগ্রহণ করতে পারব। বর্তমানে বাংলাদেশ বিশ্বের ৪১তম সেরা অর্থনীতির দেশের তালিকায় রয়েছে। গত ১০ বছরে বাংলাদেশ ৫৮তম অর্থনীতির দেশের তালিকায় থেকে ১৭ ধাপ এগিয়ে ৪১তম ধাপে উন্নীত হয়েছে। তিনি বলেন ২০৪১ সাল আসতে এখনো ২১ বছর বাকি। এই ২১ বছরে বাংলাদেশে ২১তম ধাপ অতিক্রম করে ২০৪১ সালে বিশ্বের বৃহত্তম ২০ অর্থনৈতিক দেশে পরিণত হবে এবং এটা সম্ভব বলে আমি বিশ্বাস করি। এই অর্জনের মধ্য দিয়ে ২০৪১ সালে আমরা জি-টোয়েন্টি সম্মেলনে অংশগ্রহণ করতে পারব, যা হবে বাংলাদেশের জন্য অনেক গৌরবের। খেলাপি ঋণ প্রসঙ্গে অর্থমন্ত্রী বলেন, খেলাপি ঋণ একটা অপরাধ, যা আমাদের বন্ধ করতে হবে। খেলাপি ঋণ বাড়ার প্রবণতা আমাদের থামাতে হবে এবং জাতিকে খেলাপি ঋণ থেকে মুক্ত করতে হবে। তিনি বলেন, ব্যাংকের টাকা জনগণের টাকা, কৃষকের টাকা। এই টাকাকে খেলাপিতে পরিণত করা যাবে না।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত